প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নিরাপত্তা পরিষদের কারণে বাংলাদেশ গণহত্যার স্বীকৃতি পায়নি, বললেন ব্যারিস্টার আমির উল ইসলাম

রুহুল আমিন : সংবিধান প্রণেতা ব্যারিস্টার আমির উল ইসলাম বলেছেন, আমরা ১৯৭১সালে দীর্ঘ ৯ মাস পাকিস্তানের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে স্বাধীনতা লাভ করি। সে সময় পাকিস্তান ২৫ মার্চ বাঙ্গালীদের উপর এক নারকীয় হত্যা চালানো হয়। যা গণহত্যা দিবস নামে আমরা পালন করি।

সোমবার ডিবিসির রাজকাহন অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, যারা এ দেশের নাগরিক যুদ্ধ চলাকালীন সময়ে পাকিস্তানকে সহায়তা করেছিলো তাদের বিচার আমরা করেছি, বা অনেকের বিচার চলতেছে। কিন্তু যুদ্ধের সাথে পাকিস্তানের সদস্য যারা জড়িত তাদের বিচার আমরা করতে পারি নাই। যদিও যুদ্ধের পর আমরা পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর ১৯৫ জন সদস্যকে চিহ্নিত করেছিলাম। যারা গণহত্যার সময় বাঙ্গালীদের উপর এক নৃশংষ ভাবে হত্যা চালানোর ব্যাপারে জড়িত। প্রথমে পাকিস্তান বলেছিলো তাদের বিচার তারা করবে। কিন্তু পরে তারা অস্বিকার করেছে।

তিনি বলেন, জাতিসংঘে আমাকে বঙ্গবন্ধু পাঠিয়েছিলো গণহত্যার বিচার চাইতে ও গণহত্যার স্বীকৃতির দাবি আদায় করার জন্য। কিন্তু সে সময় ভুট্টুর ভেটোর দেবার কারণে বিচার বন্ধ হয়ে যায়। জাতিসংঘের নিরাপত্তার পরিষদের সদস্যরা যদি এ ব্যাপারে সহায়তা করতো তাহলে আমরা বিচার ও গণহত্যার স্বীকৃতি পেতাম। কারণ জাতিসংঘে বিশ্বের বিগ পাওয়ারের দেশগুলোর সহায়তা ছাড়া কিছু দাবি আদায় করা যায় না।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত