প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মৌলভীবাজারের ফিলিং স্টেশনগুলোতে বোতলে করে বিক্রি হচ্ছে পেট্রোল-অকটেন

সোহেল রানা, মৌলভীবাজার প্রতিনিধি : নাশকতা রোধে বোতলে করে অবৈধভাবে পেট্রল ও অকটেন বিক্রি নিষিদ্ধ থাকলেও মৌলভীবাজারে এ নির্দেশনা মানা হচ্ছে না। শহরের বিভিন্ন ফিলিং স্টেশনে বোতলে করে বিক্রি হচ্ছে দাহ্য পদার্থে পেট্রোল ও অকটেন। মঙ্গলবার দুপুরে মৌলভীবাজার শহরের কয়েকটি ফিলিং স্টেশন ঘুরে বোতলে করে অবৈধভাবে পেট্রল ও অকটেন বিক্রির এ চিত্র দেখা যায়। শহরের বিভিন্ন ফিলিং স্টেশনে বোতলে করে অবৈধভাবে পেট্রোল ও অকটিন বিক্রি করলেও রহস্যজনক কারণে স্থানীয় প্রশাসন নিরব রয়েছে।

জানা গেছে,সারাদেশে নাশকতা রোধে অবৈধভাবে বোতলে করে পেট্রল ও অকটিন বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করে সরকার।ওই নির্দেশনার আলোকে মৌলভীবাজারের সব পাম্প মালিক ও ডিলারদের বোতলে করে পেট্রোল ও অকটেন বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করে জেলা প্রশাসন। এনির্দেশনা অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়। জেলা প্রশাসনের সেই নির্দেশনা অমান্য করে এখন শহরের বিভিন্ন ফিলিং স্টেশনে বোতলে করে পেট্রোল-অকটিন বিক্রি করা হচ্ছে। অবৈধভাবে পেট্রোল ও অকটিন বিক্রি করা হলেও বিক্রেতাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না স্থানীয় প্রশাসন।

মঙ্গলবার দুপুরে শহরের সিলেট রোডের মের্সাস সাজ্জাদুর রহমান সিএনজি ফুয়েল ফিলিং স্টেশনে পেট্রল নিতে আসেন শহরের শাদী মহল এলাকার জনৈক মোটরসাইকেল আরোহী। কিন্তু তার মাথায় হেমলেট না থাকায় পেট্রোল দিতে চায়নি কর্তৃপক্ষ। পেট্রোল না দেওয়ার কারণ জানতে চাইলে বলা হয় হেমলেট বিহীন চালকের কাছে পেট্রোল বিক্রিতে প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এ নিয়ে ফিলিং স্টেশনের ম্যানেজারের সাথে কথা বলার সময় বোতলে করে পেট্রোল বিক্রি করতে দেখে সেটি ক্যামেরাবন্দি করতেই নড়েচড়ে বসলেন ম্যানেজার। হেমলেট বিহীন চালকের নিকট পেট্রোল বিক্রিতে নিষিদ্ধ হলে অবৈধভাবে বোতলে করে পেট্রল বিক্রি কি বৈধ? জানতে চাইলে ফিলিং স্টেশন ম্যানেজারের কাছে কোন জবাব মিলেনি।

শহরের বিভিন্ন ফিলিং স্টেশনে বোতলে করে অবৈধভাবে পেট্রোল ও অকটেন বিক্রির বিষয়ে মৌলভীবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাশেদুল ইসলাম পিপিএম বলেন,ফিলিং স্টেশনগুলোতে বোতলে করে পেট্রোল ও অকটেন বিক্রি করা নিষেদ রয়েছে। বিষয়টি সর্ম্পকে খোজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত