প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

৩ মাস মাইনে নেই, দুর্ঘটনার দায় চাপাবেন না, কর্তৃপক্ষকে চিঠি জেট এয়ারের প্রকৌশলীদের

রাশিদ রিয়াজ : ২. আর্থিক ভাবে ধুঁকতে থাকা ভারতের জেট এয়ারওয়েজ গত সপ্তাহে জানিয়েছে, আরও ৪টি বিমান তারা বসিয়ে দিচ্ছে। কারণ বেশির ভাগ বিমানেরই লিজের টাকা বকেয়া রয়েছে। একের পর এক বিমান বাতিল হয়ে যাচ্ছে। যাত্রীদের নিরাপত্তা ঝুঁকির মুখে। যে কোনও দিন দুর্ঘটনা ঘটে যেতে পারে। এধরনের বিপজ্জনক পরিস্থিতি আঁচ করে দেশটির বেসামরিক বিমান পরিবহন নিয়ন্ত্রক ডিজিসিএ-কে চিঠি দিয়ে জেট এয়ারওয়েজের এয়ারক্রাফ্ট মেন্টেইনেন্স প্রকৌশলীদের সংগঠন বলেছে, কোনো দুর্ঘটনার দায় তারা নিবেন না।

ডিজিসিএ-কে চিঠিতে জেট এয়ারওয়েজের কর্মীরা জানান, মাসের পর মাস মাইনে নেই বলে এমনিতেই সংসার চালাতে তাদের নাভিঃশ্বাস উঠছে। কর্মীদের মানসিক অবস্থা ভালো নয়। এই অবস্থায় বিমানের রক্ষণাবেক্ষণ করা যাচ্ছে না। তাই যাত্রীদের সুরক্ষা ঝুঁকির মুখে। যে কোনও দিন বড় দুর্ঘটনা ঘটে যেতে পারে।

চিঠিতে আরও লেখা হয়েছে, সিনিয়র ম্যানেজমেন্ট ব্যবসার দিকটা দেখে। কিন্তু, আমরা প্রকৌশলীরা যাত্রী সুরক্ষার দিকটি দেখি। বিমানগুলির রক্ষণাবেক্ষণ করি। গত ৭ মাস ধরে আমরা ঠিক সময়ে বেতন পাচ্ছি না। টাইমস অব ইন্ডিয়া

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত