প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অসহায় রিয়াদের কষ্টটা কি কেউ বুঝবে না?

আক্তারুজ্জামান : এমন দলের দায়িত্ব নেওয়াও যেন পাপ! মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের জীবনে এর চেয়ে অসহায় সময় সম্ভবত আর কখনোই আসেনি। দলের ভার কাঁধে নিয়ে নিউজিল্যান্ডে গিয়ে বারবার হতাশা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে রিয়াদকে। তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে হোয়াইটওয়াশের পর দুই টেস্টেই ইনিংস ব্যবধানে হেরেছে বাংলাদেশ দল।

এখন তাসমান দ্বীপ ভ্রমনের শেষ ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ দল। সেই ম্যাচে মাহমুদউল্লাহকে কি কেউ টেনে তুলবেন? তার কাঁধে হাত রেখে বলবেন, আরে! চিন্তা কিসের আমি তো আছি! কিন্তু এই কথাটি বলবে কে?

শিষ্যদের নিয়ে সারাটা দিনেই পরিশ্রম করছেন স্টিভ রোডস।

মুশফিক ইনজুরিতে, সৌম্যর ঝলক এই আছে এই নেই, মিঠুন চেষ্টা করে পারছেন না, সাদমানের ব্যাট হাসছে না। আর টেস্ট স্পেশালিস্ট মুমিনুল হক তো নিজেকে হারিয়ে ফেলে খুঁজে বেড়াচ্ছেন। বল হাতে রিয়াদের কষ্ট বোঝার মতোও কেউ নেই। মুস্তাফিজ, রাহী, এবাদত কিংবা খালেদরা এখনো ঝড় তুলতে পারেননি। যেখানে প্রতিপক্ষের বোলাররা উইকেটে ঝড় তুলছেন সেখানে টাইগারদের শ্রীহীন বোলিংয়ে বারবার রান পাহাড়ে চাপা পড়ছে বাংলাদেশ দল।

নিজেকে ফিরে পেতে মুশফিকও অনুশীলন করেছেন টানা কয়েক ঘণ্টা।

ক্রাইস্টচার্চে শেষ টেস্টের আগে মুশফিক ফিরছেন এমন সুখবর শুনেছে বাংলাদেশ। তবে মুশফিক কি পারবেন মাহমুদউল্লাহর কষ্টটা একটু বুঝতে? তাকে একটু শান্তি দিতে? আসলে এক মুশফিকই বা কতটুকু দিবেন? ক্রাইস্টচার্চে বাংলাদেশ সময় শনিবার ভোর ৪টায় মাঠে গড়াবে তিন ম্যাচ সিরিজের শেষ টেস্ট। ওই ম্যাচকে সামনে রেখে বাংলাদেশ দল আরও ঘাম ঝরিয়েছে। সাদমান, মিঠুন, সৌম্য ও মুমিনুলরা সমানে অনুশীলন করেছেন। চোট উতরানো মুশফিকও ছিলেন তাদের সঙ্গী।

স্পিন কোচ সুনীল যোশী মিরাজকে নিয়ে নতুন ছক আঁকার চেষ্টা করেছেন। জানি না ক্রাইস্টচার্চে তিনি কি জাদু দেখাবেন!

ক্রাইস্টচার্চের এক পাশে মেহেদি হাসান মিরাজের সঙ্গে আলাপে দেখা গেলো স্পিন কোচ সুনীল যোশীকে। যার দ্বারা বোঝা যাচ্ছে দ্বিতীয় টেস্টে না খেললেও তৃতীয় টেস্টে দেখা যেতে পারে অলরাউন্ডার মিরাজকে। যে মিরাজও পারেন রিয়াদের কষ্টটা একটু উপলব্ধি করতে।

এবাদত ও রাহীর সঙ্গে বল হাতে নেতৃত্বে দেখা যেতে পারে মিরাজকে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত