প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মনিরুল হক বললেন, কাগজের দাম বেশি হওয়ায় বই পাঠকের ক্রয়ক্ষমতার বাইরে চলে যাচ্ছে

সানিম আহমেদ : অনন্যা প্রকাশনীর প্রকাশক মনিরুল হক বলেছেন, রাষ্ট্রভাষা বাংলা না হলে আমরা বাঙালি হতাম না। আমরা স্বাধীন হতাম না। বাংলা ভাষা রাষ্ট্রভাষা না হলে আমরা এভাবে কথা বলতে পারতাম না। আমাদের মতামত জানাতে পারতাম না। নিজস্ব ভাষা নিয়ে যে আমার গৌরব সেটা নিয়ে কথা বলতে পারতাম না। এটাই আমাদের বড় পাওয়া।
এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি আরও বলেন, যারা রাষ্ট্রভাষার জন্য আন্দোলন করেছেন, এই একুশে ফেব্রুয়ারি এনেছেন, স্বাধীনতা এসেছে, মূল সূতিকাঘর তখন থেকেই। না হলে তো আমরা জাতি হিসেবে বাঙালি হতে পারতাম না। বাংলাদেশি হতে পারতাম না। বাংলা ভাষার ওপর সে রকম বই এখনো আসেনি। এটা গবেষণার ব্যাপার। ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিতে হবে। ইতিহাসকে তো বিকৃত করা যাবে না। এর ওপর আরো গবেষণা হওয়া উচিত। আমরা বইমেলায় প্রতিদিনই নতুন নতুন লেখক পাচ্ছি। কেউ কারো জন্য বসে থাকে না। জায়গা ভরে যায়। একজন না থাকলে আরেকজন এসে পড়ে। নতুন লেখকেরা চেষ্টা করছেন। মনিরুল হক বলেন, গত কয়েক বছরে আমরা যে কয়েকজন বড় লেখককে হারিয়েছি তার অভাব এখনো পূরণ হয়নি। আমরা পহেলা ফাল্গুন বলতে পারি। কিন্তু আমরা একুশে ফেব্রুয়ারি বলি। এটাই চলে আসছে। বাংলা ভাষা আন্তর্জাতিক ভাষা হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে। এটা ইতিবাচক। তিনি বলেন, নিজস্ব ভাষাকে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেয়েছি সেটা আমাদের গর্বের বিষয়। একজন বাঙালি হিসেবে আমি গর্ব করে বলতে পারি বাংলা আমার ভাষা। প্রতিবছরই কাগজের দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে। সব লেখকই টাকা দিয়ে বই ছাপে তা নয়। আবার সব প্রকাশকই যে টাকা দিয়ে বই ছাপে তা নয়। পৃথিবীর সব দেশেই নতুন লেখকেরা নিজের টাকায় বই প্রকাশ করে। এটা শুধু আমাদের দেশেই নয়। তবে কাগজের মূল্য বৃদ্ধিতে পাঠকদের সমস্যা হচ্ছে। বইয়ের দাম বেড়ে যাচ্ছে। ক্রয় ক্ষমতার বাইরে চলে গেলে পাঠকেরা বই কিনবেন না। সেদিকে সরকারের নজর দেয়া উচিত। যাতে আমাদের কাগজগুলো আমরা বিনা শুল্কে পাই এবং কাগজের মূল্য যেন নির্দিষ্ট সীমারেখার মধ্যে থাকে। তাহলে লেখক বাঁচবে, প্রকাশক বাঁচবে। বাংলা একাডেমির এবারের আয়োজন অনেক উন্নত হয়েছে। বাংলা একাডেমি চেষ্টা করছে। আমরাও তার সাথে জড়িত। আরেকটু সচেতন হওয়া উচিত বাংলা একাডেমিকে। যেমন মেলার স্টল আরো কয়েকদিন আগে দেয়া উচিত। পর্যাপ্ত ইট, বালু যেন বিছিয়ে রাখা হয়। মাত্র একদিনের বৃষ্টিতেই অনেক ক্ষতি হয়ে গেছে। এগুলো যেন না হয়, সেদিকে নজর রাখা উচিত।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত