প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অধ্যাপক সৈয়দ আনোয়ার হোসেন বললেন, আর কয়টা দুর্ঘটনা ঘটলে কর্তৃপক্ষ সচেতন হবে!

জিয়ারুল হক : চকবাজারের চুরিহাট্টায় ভয়াবহ আগ্নিকান্ডে প্রায় ৮০ জনের প্রাণহাণি ঘটেছে। মর্মান্তিক এই ঘটনায় সারাদেশে চলছে শোকের মাতম। এ বিষয়ে যমুনা টিভির ২৪ ঘন্টা অনুষ্ঠানে অধ্যাপক সৈয়দ আনোয়ার হোসেন (বঙ্গবন্ধু চেয়ার বিইউপি) বলেন, আমি একাধারে মর্মাহত ও ক্ষুদ্ধ । আর কয়টা দুর্ঘটনা ঘটলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ সচেতন হবে। এর দায় সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের নিতে হবে। যমুনা টিভি তিনি ইতিহাসবিদ হেগেলের কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘ইতিহাসের শিক্ষা হলো ইতিহাস থেকে কেউ শিক্ষা নেয় না’। যদি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ নিমতলির ঘটনা থেকে সচেতন হতো তাহলে এই ঘটনা ঘটতো না। তারা এমন কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি যাতে এমন ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে।

তিনি বলেন, আমি ক্ষুদ্ধ এই জন্য যে, এটি মনব সৃষ্ট বিপর্যয়। যা এড়ানো সম্ভব ছিলো। প্রাকৃতিক বিপর্যয়কে আমরা এড়াতে পারি না। মোকাবেলা করতে পারি, মোকাবেলা করে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কমাতে পারি। কিন্তু এটাতো মানুষের তৈরি বিপর্যয়। এখানে মানুষের মৃত্যু মেনে নেয়া যায় না।
তিনি বলেন, ঢাকা হচ্ছে পৃথিবীর মধ্যে একটি মাত্র শহড় যা চরমভাবে অপরিকল্পিত। এখানে কেউ দায়িত্বও নেয় না। যদি দায়িত্ব নিতো তাহলে দায়িত্ব পালনের ঐকান্তিকতা সৃষ্টি হয়।

এখানে সর্বোচ্চ ঘনবসতিপুর্ণ এলাকা। সিংহভাগ জরাজীর্ণ বসতি, এমন একটি এলাকায় রাসায়নিক গুদাম হয় কি করে? তিনি বলেন, নগর পিতার হাতে কোনো ক্ষমতা নেই। আছে রাজউকের হাতে এবং মন্ত্রণালয়ের হাতে। তিনি বলেন, ‘রাজউক এমন একটি দালান, যার প্রতিটি ইটের মাঝে দুর্নীতি রয়েছে। দুর্নীতি না সরালে এর দায়িত্ব পালনের পরিবেশ, তৈরি হবে না। এর দায় দায়িত্ব সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীর নিতে হবে।

সর্বাধিক পঠিত