প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নিজের ভুল স্বীকার করলেন সালমান মুক্তাদির

ফাহিম বিজয় : বাংলাদেশের জনপ্রিয় ইউটিউবার ও অভিনেতা সালমান মুক্তাদির আজ বুধবার বিকেলে ফেসবুকে লাইভে আসেন এবং নিজের ভুল স্বীকার করেন। ইন্টারনেটে অপ্রাসঙ্গিক ও অশ্লীল ভিডিও আপলোডের অভিযোগে সালমান মুক্তাদিরকে গতকাল মঙ্গলবার জিজ্ঞাসাবাদ করে কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি)। তার ঠিক পরদিন ফেসবুক লাইভে এসে নিজের বিতর্কিত গান সরিয়ে ফেলা ও সাইবার ক্রাইম বিভাগ নিয়ে কথা বলেন। এনটিভি

সালমান মুক্তাদির বিকেল ৩টার দিকে ফেসবুকে লাইভে এসে বলেন, ‘আমি আমার ভুল বুঝতে পেয়েছি এবং অনুতপ্ত। আমার একটা গান ছিলো অভদ্র প্রেম নামে। যে গানটা বাংলাদেশে অনেক বেশি তর্ক-বির্তকের সৃষ্টি করে। সাইবার ক্রাইম বিভাগ আমার সঙ্গে যোগাযোগ করে বলে, এটা আমাদের কনটেক্সটের বিপরীতে যায়। গানটা আমি নামিয়ে ফেলেছি। যে ভিডিও ছিলো সেটা কোনোভাবে আমাদের দেশের জন্য গ্রহণযোগ্য না। আমি চেষ্টা করবো গানের ভিডিওটা নতুন করে ঠিকঠাক মতো বানানোর। নিরাপদ ইন্টারনেটের জন্য যে ক্যাম্পেইন হচ্ছে সেটাকে আমি সমর্থন করছি। আমি আশাবাদী, এই ক্যাম্পেইনের একজন অ্যাম্বাসেডর হতে পারবো। আপনাদের সবাইকে আমন্ত্রণ জানাবো এই ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণ করার জন্য এবং এটাকে সাধুবাদ জানাতে।

সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ দমন বিভাগের কার্যালয়ে সালমানকে গতকাল বিকেল ৪টার দিকে নেয়া হয়। এরপর তাকে প্রায় চার ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় বলে জানান ডিএমপির কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের সোশ্যাল মিডিয়া মনিটরিং টিমের এডিসি নাজমুল ইসলাম।

নাজমুল ইসলাম বলেন, ইন্টারনেটে অপ্রাসঙ্গিক ও অশ্লীল ভিডিও আপলোডের অভিযোগে ইউটিউবার সালমান মুক্তাদিরকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছি আমরা। সে তার ভুল স্বীকার করে নিয়েছে। এখন থেকে ইন্টারনেট ব্যবহারে সতর্ক থাকবে বলে আমাদের জানিয়েছে। বিতর্কিত কন্টেন্টগুলো মুছে ফেলবে সালমান।’

মূলত জিজ্ঞাসাবাদের জন্যই সালমানকে ডাকা হয়েছিলো বলে জানান নাজমুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। সাইবার দুনিয়াকে নিরাপত্তা দিতে যা যা করা দরকার আমরা সবটাই করব। ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি (আইসিটি) মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের নির্দেশে আমরা কাজ করে যাচ্ছি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত