প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রাকসু নির্বাচনে সান্ধ্যকালীন শিক্ষার্থীদের প্রার্থিতার সুযোগ দাবি

সানজানা শ্রুতি : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (রাকসু) নির্বাচনে এম.ফিল, পিএইচডি এবং বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করার পর সান্ধ্যকালীন কোর্সে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের প্রথমবারের মতো ভোটার ও প্রার্থী হওয়ার সুযোগ দেওয়াসহ সাতটি দাবি জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু প্রজন্মলীগের নেতাকর্মীরা।

বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৪টা থেকে ৫টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর দপ্তরে রাকসু সংলাপ কমিটির সঙ্গে অনুষ্ঠিত সংলাপে সংগঠনটির নেতাকর্মীরা এসব দাবি জানান।

তাদের অন্য দাবিগুলো হলো- রাকসুতে মুক্তিযুদ্ধ এবং তথ্য-প্রযুক্তি বিষয়ক দুটি পদ যুক্ত করা, ক্যাম্পাসে নির্বাচনী পরিবেশ তৈরি করা, স্বতন্ত্র প্রার্থীদের কোন প্যানেল করতে না দেওয়া, ক্যাম্পাসে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী চর্চা নিষিদ্ধ করা, প্রতিবছর রাকসু নির্বাচন ও নির্বাচনের জন্য তারিখ নির্দিষ্ট করা, নির্বাচনকালীন সাংবাদিকদের নির্বিঘ্নে কাজ করতে দেওয়া।

সংলাপ শেষে সংগঠনটির রাবি শাখার সভাপতি আব্দুল্লাহ আল মামুন সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমাদের দাবির বিষয়ে সংলাপ কমিটি ইতিবাচকতা দেখিয়েছেন। আমরা আশা করছি প্রশাসন আমাদের দাবিগুলো গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করবে।’

সংলাপ কমিটির আহ্বায়ক প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু প্রজন্মলীগের নেতাকর্মীরা যে দাবিগুলো জানিয়েছে সেগুলো অধিকাংশই যৌক্তিক। তবে সান্ধ্যকালীন কোর্সের শিক্ষার্থীদের প্রার্থীতার বিষয়টি নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।’

সংলাপে কমিটির সদস্য সচিব আবু সাঈদ মো. নাজমুল হায়দার, অধ্যাপক লায়লা আরজুমান বানু, রাবি প্রজন্মলীগের সাধারণ সম্পাদক শামীম রেজা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, রাকসু নির্বাচনকে কেন্দ্র করে গত ৭ ফেব্রুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্রিয়াশীল ছাত্র সংগঠনগুলোর সঙ্গে আলোচনা শুরু করে রাকসু সংলাপ কমিটি। আগামী ২৫ ফেব্রুয়ারি ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন এবং ২৮ ফেব্রুয়ারি রাবি ছাত্র ইউনিয়নের সঙ্গে সংলাপ অনুষ্ঠিত হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত