প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ফেসবুক কখনোই ‘লিটল’ ম্যাগাজিনের স্থান নিতে পারবে না

জিয়ারুল হক : বাংলাদেশে এক সময় নবীন লেখক, কবি সাহিত্যিকদের লেখা প্রকাশের প্রাথমিক স্থান ছিলো লিটল ম্যাগাজিন। অনেকেই লিটল ম্যাগাজিনকে সাহিত্যিকদের আতুর ঘর বলে থাকেন। বর্তমান সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক সেই জায়গা দখল করছে কি না এ ব্যাপারে লেখকেরা বলেন, ফেসবুক কখনোই লিটল ম্যাগাজিনের স্থান নিতে পারবে না। বিবিসি বাংলা

লেখক ও প্রকাশকদের দাবি ফেসবুক আর বই এক হতে পারে না। এ বিষয়ে ভিন্নচোখ প্রকাশনীর প্রকাশক এসএম নকিব বলেন, ফেসবুকে মনের ভাব প্রকাশ করা সম্ভব না। যারা বই লেখেন তারা কখনো তাদের মনের ইচ্ছানুযায়ী ফেসবুকে লিখতে পারবেন না। কিন্তু বইতে ঠিকই তারা তাদের কথাগুলো সুচারুরুপে পাঠকের কাছে তুলে ধরতে পারবেন। তিনি বলেন, যারা বই পড়েন তারা ঠিকই বই কিনবেন। ম্যাগাজিন কিনবেন পড়বেন। আমি দেখেছি মানুষ বস্তা নিয়ে এসেছে ম্যাগাজিন কেনার জন্য। তিনি বলেন, এখনো ম্যাগাজিনের ভালো চাহিদা রয়েছে।
এবারের মেলায় লিটল ম্যাগাজিনের জন্য ১৩০টি স্টল বরাদ্দ থাকলেও অনেক স্টল এখনো খালি পড়ে আছে। এর কারণ সম্পর্কে সময়পূর্বাপর নামের পাক্ষিক ম্যাগাজিনের সুরাইয়া জাহান বলেন, আগের মতো লিটল ম্যাগাজিনের সেই জোয়ারটা নেই। মানুষ ফেসবুকমুিখ হওয়াতে এই অবস্থা হয়েছে বলে তিনি মনে করেন। এসময় লিটল ম্যাগাজিনের স্টল দেখিয়ে বলেন, দেখুন মানুষের জটলা নেই। অথচ আগে সবসময় এসব স্টল জমজমাট থাকতো।

তবে কেউ কউে বলছেন, মননশীলতার অভাবে লিটল ম্যাগাজিনের বাজার সংকোচন হচ্ছে। তারা মননশীলতার জায়গা থেকে সরে ব্যবসার দিকে ঝুঁকেছে। ফলে ভালোমানের লেখা ছাপা হচ্ছে না। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ভালোমানের লেখা থাকলে অবশ্যই পাঠক বই কিনবে। লিটল ম্যাগাজিনের যে গ্রহণযোগ্যতা তৈরি হয়েছে, কোন সামাজিকযোগাযোগ মাধ্যম সেটি নিতে পারবে না বলে মনে করেন তারা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত