প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সঞ্জিতকে নিয়ে দোটানায় পড়লো বিসিবি

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলাদেশ জাতীয় দলে এখনো ডাক পায়নি তরুণ অফস্পিনার সঞ্জিত সাহা দ্বীপ। ঘরোয়া লীগ খেলেন তিনি। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ষষ্ঠ আসরে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের হয়ে খেলেছেন এই অফস্পিনার। বোলিং অ্যাকশন ও চাকিংয়ের অভিযোগ এসেছে তার বিরুদ্ধে।

বিপিএলে বল করার পরে তার বিরুদ্ধে বোলিং ও চাক অ্যাকশনের অভিযোগ করে আম্প্যায়ার। এই অভিযোগের কারনে ২০১৮-২০১৯ মৌসুমে ঘরোয়া লিগে দল পান নি তিনি। কিন্তু বিষ্ময়ের ব্যাপার হলো কোন বলটা তিনি চাক করেছেন তার সুনির্দিষ্ট কোন ব্যাখ্যা বিসিবির কাছে নেই। এই জন্য তাকে নিয়ে দোটানায় পরতে হচ্ছে বিসিবি কে।

মঙ্গলবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) মিরপুরের ক্রিকেট একাডেমি মাঠে বোলিং অ্যাকশন পরীক্ষা দিয়েছেন তিনি। পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে পারলেই সঞ্জিতেরে ভাগ্যে জুটবে প্রিমিয়ার লিগ।

পরীক্ষা শেষে বিসিবির ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড ইনফরমেশন ম্যানেজার নাসির উদ্দিন আহমেদ নাসু সঞ্জিতের অ্যাকশন নিয়ে দিলেন বিস্ময়কর তথ্য, ‘এটা ইন্টারেস্টিং, সুনির্দিষ্ট কোনো অভিযোগ নেই তার (সঞ্জিত) বিরুদ্ধে। আম্পায়াররা বলছে, কিছু ডেলিভারি, তবে কোন ধরণের ডেলিভারি সেটা নিয়ে কিছু বলেনি। এবার আমরা চিন্তা করেছি ম্যাচের ভিডিওসহ আম্পায়াদের সঙ্গে বসে তারপর আমরা একটা সিদ্ধান্ত নিবো।’

বিসিবির বোলিং অ্যাকশন রিভিউ কমিটির সদস্য নাসির উদ্দিন আহমেদ পরীক্ষা প্রসঙ্গে বলেন, ‘সঞ্জিত সাহা, নাহিদুল ইসলাম ও প্রথম বিভাগের একজন বোলারের পরীক্ষা আমরা নিয়েছি। ১৮টা করে ডেলিভারি তারা করেছে। তাতে তিন ধরণের বোলিং ছিল স্টক ডেলিভারি, ফাস্টার ডেলিভারি এবং ভ্যারিয়েশন।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ