প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সংসদে হুইপিংয়ে দৃষ্টি কেড়েছেন সামশুল হক চৌধুরী

আসাদুজ্জামান সম্রাট : জাতীয় সংসদের কার্যক্রম নির্বিঘ্ন করতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন জাতীয় সংসদের হুইপ সামশুল হক চৌধুরী। প্রতিনিয়ত সংসদের কোরাম পূরণ করা, কোরাম ধরে রাখতে তার তৎপরতা সকলের দৃষ্টি কেড়েছে।

চট্টগ্রাম-১২ আসনের তিনবারের সংসদ সদস্য সামশুল হক চৌধুরী চট্টগ্রাম জেলার প্রথম ব্যক্তি যিনি আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন সংসদের হুইপের দায়িত্ব পেয়েছেন। সংসদের অধিবেশন শুরুতে যাতে বিলম্ব না হয় এবং অধিবেশন যাতে কোরাম শূন্য না হয়ে পড়ে তার জন্য তাকে লবি থেকে লবিতে ছুটতে দেখা গেছে। সংসদের ভিআইপি ক্যাফেটেরিয়ায় গিয়ে এমপিদের সংসদে যোগদানের জন্য অনুরোধ জানাচ্ছেন।

চলতি একাদশ সংসদের অধিবেশন পরিচালনায় এখন পর্যন্ত কোরাম সংক্রান্ত কোনো সমস্যার সৃষ্টি হয়নি। বুধবার নির্ধারিত সময়েই সংসদের অধিবেশন শুরু হয়। মাগরিবের নামাজের জন্য ২০ মিনিট বিরতির পর নির্ধারিত সময়েই অধিবেশন শুরু হয়। হুইপ সামশুল হক চৌধুরীকে বুধবারও দেখা গেছে সংসদের ভিআইপি ক্যাফেটেরিয়ায় গিয়ে চা-নাস্তার টেবিল থেকে সংসদ সদস্যদের তুলে আনতে। তার অনুরোধেই চা পান শেষ না করেই শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, সংসদ সদস্য আহসানুল হক ডিউককে উঠে যেতে দেখা গেছে।

সংসদে সাধারণত: হুইপদের অফিস দ্বিতীয় তলায় হয়ে থাকে। তিনি সংসদের সুবিধার্থে তার অফিস তিন তলায় অধিবেশন ফ্লোরেই অফিস নিয়েছেন। সংসদে মন্ত্রী, সংসদ সদস্যদের অফিস, বাসা বরাদ্দসহ নানা কাজে প্রতিনিয়তই দৌড়-ঝাপ করতে দেখা যাচ্ছে তাকে।

নিজের দায়িত্ব সম্পর্কে সামশুল হক চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী আস্থা রেখে যে দায়িত্ব দিয়েছেন তা পালনে সর্বাত্মক চেষ্টা করছি। এর পাশাপাশি নিজ নির্বাচনী এলাকার উন্নয়ন, মানুষের সেবা করার চেষ্টা করছি।

ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে পরিচিত সামশুল হক চৌধুরী সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে নিজ নির্বাচনী এলাকার উন্নয়নে ব্যাপক কাজ করেছেন। প্রায় আড়াই হাজার কোটি টাকার বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করে পটিয়ার চেহারাই বদলে দিয়েছেন। জাতীয় সংসদের হুইপ হিসেবে ইতিমধ্যেই সক্রিয় ভুমিকা পালন করে সবার দৃষ্টি কেড়েছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত