প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চীনা অর্থনীতির হাল বোঝা দুরূহ ব্যাপার, প্রকৃত অবস্থা সরকারি তথ্যের চাইতেও দুর্বল হতে পারে

নূর মাজিদ : চীনের অর্থনীতির ভেতরের দশা কেমন, কিভাবেই বা দেশটির অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি কমছে তা নিয়ে বিশ্বের বাঘা বাঘা অর্থনীতিবিদদের জানার আগ্রহ অসীম। এই নিয়ে তাদের আলোচনা ও বিশ্লেষণেরও যেন শেষ নেই। এই বিষয়ে তাদের অর্থনৈতিক পূর্বাভাষ অনেক সময়েই পর¯পরবিরোধী বক্তব্য দিচ্ছে। এর নেপথ্যে দেশটির সরকারি সূত্রের দেয়া তথ্যের নির্ভুলতা নিয়েই এখন প্রশ্ন উঠছে। চীনের সঙ্গে বাণিজ্যযুদ্ধে জড়িয়ে পড়ার পর মার্কিন অর্থনীতিবিদেরা যখন চীনের অর্থনীতির সঠিক তথ্য পেতে উঠে-পড়ে লেগেছেন, ঠিক তখনই তারা সংশয় প্রকাশ করলেন। সিএনএন, স্ট্রেইটস টাইমস

চীনের সরকারি জরিপ সংস্থাগুলোর দেয়া অর্থনৈতিক চিত্র নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন চায়না বেইজি বুকের শীর্ষ নির্বাহী লেল্যান্ড মিলার। তার প্রতিষ্ঠান চীনের কয়েক হাজার বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের কাছে অর্থনৈতিক পরামর্শ ও তথ্য সরবরাহ করে। তিনি বলেন, (চলতি বছর) চীনা সরকার তাদের মোট দেশজ উৎপাদনের সার্বিক প্রবৃদ্ধি নিয়ে যেসব তথ্য দিয়েছে তা আবর্জনার শামিল। ‘এটি প্রায় নিশ্চিত যে তাদের দেয়া সংখ্যাভিত্তিক তথ্য স¤পূর্ণ অসঙ্গতিপূর্ণ।’

অন্য মার্কিন বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, চীনা পরিসংখ্যান ব্যুরো যে সকল তথ্য সরবরাহ করছে তা তারা সরকারের ভাবমূর্তি ধরে রাখার স্বার্থেই করছে। এইক্ষেত্রে প্রকৃত অর্থনৈতিক চিত্রের চাইতে রাজনৈতিক বিবেচনাপ্রসূত ইতিবাচক তথ্যের সমাবেশ বেশি। যার ফলে দেশটির সার্বিক অর্থনৈতিক চিত্র নিরূপণ করার কাজটি সকলের জন্যেই কঠিন হয়ে পড়েছে।

আমেরিকান এন্টারপ্রাইজ ইন্সটিটিউডের রেসিডেন্ট স্কলার ডেরেক সিসরস বলেন, চীনের পরিসংখ্যান ব্যুরো দেশটির শাসক কম্যিউনিস্ট পার্টির মুখপাত্র হিসেবে কাজ করছে। এই ক্ষেত্রে তারা অর্থনীতির প্রকৃত চিত্র তুলে ধরার কাজকে দ্বিতীয় গুরুত্বের স্থানে রাখছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত