প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হানিফ সংকেতের শিক্ষণীয় বক্তব্যের ভিডিওটি ভাইরাল

অনলাইন ডেস্ক : গলা দিয়ে বেশি বলা হলে, গলা জ্বলার ভয় তো থাকবেই। তাই গলার ওপর চাপ কমাতে কথারও মাপ থাকা দরকার। কথা কম কাজ বেশি- কাজ পেলেই সবাই খুশি কারণ কথায়ই আছে, ‘খালি কলসি বাজে বেশি, ভরা কলসি বাজে না’। প্রচারের প্রাচুর্যতা না থাকলেও, যা সত্য তা নিভৃত নিরালায়ও সত্যই থাকে, মিথ্যা দিয়ে কখনোই সত্যকে ঢাকা যায় না। সুতরাং খালি কলসি বেশি না বাজানোই ভালো, তাতে ফাঁক এবং ফাঁকি ধরা পড়ার ঝুঁকি কম থাকে বলে সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া হানিফ সংকেতের একটি শিক্ষণীয় ভিডিওতে তিনি এসব কথা বলেন।

হানিফ সংকেত বলেছেন, তরুণ সমাজ আমাদের প্রাণ, ভবিষ্যতের মূল চালিকা শক্তিই হল আমাদের তরুণ সমাজ।

তিনি আরও বলেন, কথায় আছে, ‘ধনুকের তীর আর মুখের কথা একবার বেরিয়ে গেলে তা আর ফেরানো যায় না’। কথাটি পুরনো হলেও আমার বেশ পছন্দের, কারণ কথাটি শতভাগ সত্য। তেমনি সাধক সত্যানন্দের আর একটি কথা রয়েছে, ‘অনেক কথার অনেক দোষ-ভেবে চিন্তে কথা কোস্’। উপরের এবং নিচের কথাটির মধ্যে একটি চমৎকার যোগসূত্র রয়েছে।

একটি উপদেশ বাক্য রয়েছে, ‘কথা কম-কাজ বেশি’ তার পরও আমরা কাজের চেয়ে কথা বেশি বলি। এই কথা কখনো অযথা কথা, কখনো যথা কথা আবার কখনো কথার কথা। আবার এসব অযথা কথা প্রথাসিদ্ধ না হলেই বাড়ে হুঙ্কার, কথা হয়ে যায় ‘চিৎকার’। সে হুঙ্কারের প্রতিবাদে অন্যের দেহে কাঁপন ধরে, সে কাঁপনের মাধ্যমে যা জ্ঞাপন করা হয়, তার চিত্র চিত্রায়ণ সঙ্গত নয়। তার পরও সেসব দৃশ্য আমরা প্রতিনিয়ত দেখছি। সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া হানিফ সংকেতের একটি শিক্ষণীয় বক্তব্য দেখুন ভিডিওতে।

সর্বাধিক পঠিত