প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সাকিব বা মাশরাফি, একজনের বিপিএল মিশন শেষ হবে ‍বুধবার

আক্তারুজ্জামান : অবশেষে এক শিরোপাধারীকে আগামীকাল বুধবার বিদায় নিতেই হচ্ছে বিপিএলের আসর থেকে। যার এক দল এসেছে শিরোপা ধরে রাখার মিশনে। আরেকদল শিরোপা পুনরুদ্ধারের মিশন নিয়ে। রংপুর রাইডার্সের মাশরাফি লক্ষ্য নিয়ে এসেছেন ঘরের শিরোপা ঘরেই রাখতে। আর ঢাকা ডাইনামাইটসের সাকিব আল হাসানের প্রত্যয় ছিল ঘর ছাড়া শিরোপাকে আবারও ঘরে তোলা।

যদিও এই লড়াইটা ফাইনালে হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের কাছে হেরে যাওয়ায় কোয়ালিফায়ার খেলতে হবে রংপুরকে। আর অনেক কষ্টে প্লে-অফে ওঠা ঢাকা এলিমিনেটর ম্যাচ জেতায় সুযোগ পেয়েছে কোয়ালিফায়ারে। ষষ্ঠ বিপিএলের দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার ম্যাচে বুধবার মুখোমুখি মাশরাফির রংপুর ও সাকিবের ঢাকা। মিরপুরের হোম অব ক্রিকেটে সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় শুরু হবে ম্যাচটি।

দাপটের সঙ্গে দু’দলই গ্রপ পর্ব শুরু করেছিল। তবে ঢাকা শেষের দিকে যেন নুইয়ে পড়েছিল। যার ফলে রানরেটের আশ্রয় নিয়ে শেষ দল হিসেবে শেষ চারে ওঠে। আর এলিমিনেটর ম্যাচে চিটাগং ভাইকিংসকে হারিয়ে সুযোগ পেয়েছে ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে। অন্যদিকে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দল হিসেবে প্রথম কোয়ালিফায়ারে কুমিল্লার বিরুদ্ধে খেলেছে মাশরাফিরা। ওই ম্যাচ হেরেও টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে পড়েনি টম মুডির বাহিনী। দ্বিতীয় সুযোগ থাকায় সেটা আজ কাজে লাগাতে চায় রংপুর।

রংপুর ইতিমধ্যে হারিয়েছে অ্যালেক্স হেলস ও ডি ভিলিয়ার্সকে। তবে এখনো সেরা টপঅর্ডার তাদের হাতেই। জ্বলে ওঠার অপেক্ষায় ক্রিস গেইল, কুমিল্লার বিরুদ্ধে রুদ্রমূর্তি দেখানো বেনি হাওয়েল আছেন এই দলে। তাছাড়া ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেয়া রবি বোপারও তাদের দখলে। আর বিপিএলের ইতিহাস বদলে দেওয়া রাইলি রুশো তো আছেন ক্যারিয়ার সেরা ফর্মে। রানক্ষুধা যেন পেয়ে বসেছে এই প্রোটিয়া ব্যাটসম্যানকে। বল হাতে শফিউল ও মাশরাফির সঙ্গে সোহাগ গাজী ও নাজমুল ইসলাম ভালো সঙ্গ দিচ্ছেন।

এদের নিয়ে গড়া দলেই ভরসা রাখছেন মাশরাফি। ম্যাচের আগে মাশরাফির কণ্ঠে আছে আত্মবিশ্বাসী সুর। বিপিএলের চলতি আসরে গ্রুপ পর্বে দুবার মুখোমুখি হয়েছে রংপুর ও ঢাকা। দু’দলই একবার হারের বিপরীতে একবার জয় পেয়েছে। প্রথম দেখায় ঢাকার ১৮৩ রানের জবাবে ১৮১ রান করে ২ রানে হেরেছিল রংপুর। অন্য ম্যাচে ঘুরে দাঁড়িয়ে ঢাকার ১৮৬ রানের চ্যালেঞ্জ আট উইকেট হাতে রেখে টপকেছিল মাশরাফিরা।

মাশরাফিদের মুখোমুখি হওয়ার আগে অবশ্য এসব ভাবছেন না সাকিব নিজেও। ডি ভিলিয়ার্স কিংবা হেলস না থাকায় রংপুরকে একটুও হালকাভাবে নিচ্ছে না ঢাকা। নারিন, পোলার্ড ও রাসেলের উপর যথেষ্ট আস্থা রাখছেন তিনি। তাছাড়া দেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে রুবেল, রনি তালুকদার, শুভাগত হোম ও নাইমরা আছেন সন্তোষজনক ফর্মে।

তবে ফাইনালের আগে আরেকটি ফাইনালের উত্তাপ নিয়ে বিপিএলের মাঠ অবশ্য বেশ গরম। কেননা এই দুই দলকেই ফাইনালে দেখার সম্ভাবনা বেশি ছিল। তবে সেটা আর হতে দেননি তামিম ইকবালরা। এখন সেই তামিমের দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের প্রতিপক্ষ হতেই লড়বে মাশরাফি ও সাকিব।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত