প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

২ দিন পর নিহত বাংলাদেশির লাশ ফেরত দিলো বিএসএফ

লালমনিরহাট প্রতিনিধি : লালমনিরহাটের পাটগ্রাম সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর গুলিতে নিহত বাংলাদেশি যুবক আসাদুল ইসলামের লাশ দুই দিন পর ফেরত দিয়েছে বিএসএফ।

সোমবার (৪ ফেব্রুয়ারি) সকালে উপজেলার বাউরা ইউনিয়নের জমগ্রাম ও ভারতের নিউকুচলিবাড়ি সীমান্ত সংলগ্ন সড়কে মরদেহটি ফেরত দেয়া হয়। নিহত আসাদুল পাটগ্রামের বাউরা ইউনিয়নের নবীনগর গ্রামের মতিয়ার রহমানের ছেলে।

বডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) রংপুর ৫১ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল মোস্তাফিজুর রহমান জানান, পতাকা বৈঠকের সিদ্ধান্ত মতে মরদেহ ময়না তদন্ত করে সোমবার(৪ ফেব্রুয়ারী) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিজিবি’র উপস্থিতিতে ওই সীমান্তে পাটগ্রাম থানা পুলিশের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করেছে ভারতীয় পুলিশ।

এ সময় ভারতীয় কুচলিবাড়ি থানার ওসি সুবাশ চন্দ্র রায় মরদেহটি পাটগ্রাম থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) জিল্লুর রহমানের কাছে হস্তান্তর করেন। পরে আনুষ্ঠানিকতা শেষে পাটগ্রাম থানা পুলিশ মরদেহটি নিহতের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেন।

পাটগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরজু মো. সাজ্জাদ হোসেন এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহত আশাদুলের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত শনিবার (২ ফ্রেব্রুয়ারি) ভোরে আশাদুল ইসলামসহ বেশ কয়েকজন ওই সীমান্ত দিয়ে ভারতীয় গরু পারাপারের চেষ্টা করেন। এ সময় ভারতীয় নিউকুচলিবাড়ী ক্যাম্পের ১৪৩ বিএসএফ’র একটি টহল তাদের লক্ষ্য করে গুলি করেন। এ সময় অন্যরা পালিয়ে আসলেও ওই গুলিতে আশাদুল ইসলাম গুরুত্বর আহত হয়। পরে বিএসএফ সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে ভারতের মাথাভাঙ্গা হাসপাতালে ভর্তি করান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার দুপুরে তার মৃত্যু হয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত