প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কর্ণফুলী নদীর পাশে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান শুরু

অনলাইন ডেস্ক : চট্টগ্রামে নগরের সদরঘাট থেকে বারিক বিল্ডিং পর্যন্ত দু’শ স্থাপনা উচ্ছেদ কার্যক্রম শুরুর মধ্যদিয়ে দৃশ্যমান হতে যাচ্ছে কর্ণফুলী নদী দখলমুক্ত করার প্রক্রিয়া। সোমবার (৪ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু করছে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন। খবর নিউজ১৪।

জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাহমিলুর রহমান জানান, চাক্তাই থেকে পতেঙ্গা পর্যন্ত কর্ণফুলীর অবৈধ দখল উচ্ছেদ অভিযান কার্যক্রমকে তিনটি জোনে ভাগ করা হয়েছে। মোট ২ হাজার ১৮৭টি স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে। প্রথম ধাপে সদরঘাট থেকে বারিক বিল্ডিং পর্যন্ত সব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে। এরপর পর্যায়ক্রমে অপর দু’টি জোনে উচ্ছেদ অভিযান চলবে।

কর্ণফুলী নদী রক্ষায় চট্টগ্রাম বন্দরের তৎকালীন ম্যাজিস্ট্রেট মুনীর চৌধুরী পতেঙ্গা থেকে সল্টগোলা হয়ে বারিক বিল্ডিং মোড়, মাঝিরঘাট, সদর ঘাট, ইয়াকুব নগর, ফিরিঙ্গি বাজার, চাকতাই, লালদিয়ার চর, কালুরঘাট পর্যন্ত ২৩ কিলোমিটার এলাকায় চার হাজার অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান চালিয়েছিলেন। এতে কর্ণফুলী নদী তীরবর্তীসহ বন্দরের প্রায় ২ হাজার কোটি টাকার ১২৫ একর জমি উদ্ধার করা হয়। ২০০৬ সালে লালদিয়ার চর উচ্ছেদ অভিযানে ১০০ কোটি টাকার জমিও উদ্ধার করেন তিনি। পাশাপাশি উদ্ধার করা হয় রেলওয়ের দেড়শ কোটি টাকার জমি।

এদিকে সদরঘাটে বন্দরের লাইটারেজ জেটি থেকে মাঝিরঘাট পর্যন্ত ভূমি পরিমাপ করে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের জন্য লাল রং দিয়ে চিহ্নিত করা হয়েছে এবং সীমানা পিলার ঠিক করা হয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত