প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ফেসবুকে প্রতারণার মাধ্যমে অর্থ আদায় চক্রের সদস্য আটক

সুজন কৈরী : সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রতারণার মাধ্যমে ফাঁদে ফেলে অর্থ হাতিয়ে নেওয়া চক্রের এক সদস্যকে আটক করেছে র‌্যাব-১০। আটককৃতের নাম মো. আলামিন ওরফে ফাহিম।
রোববার বিকেলে রাজধানীর রায়ের বাজার থেকে তাকে আটক করা হয়।
র‌্যাব-১০ এর মেজর আশরাফুল হক বলেন, রাজধানীর একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীর অভিযোগ করেন যে, জনৈক মাহবুব সালাম ফাহিম নামের এক যুবক দীর্ঘদিন ধরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করে মিথ্যা ও ভ‚য়া তথ্য দিয়ে প্রথমে প্রেম ও পরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এবং ফাঁদে ফেলে বিভিন্ন তরুণীদের কাছ থেকে ধারাবাহিকভাবে অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে। লিখিত ওই অভিযাগের ভিত্তিতে র‌্যাব-১০ দীর্ঘ এক মাস ধরে বিষয়টির তদন্ত করে এবং তথ্য সংগ্রহ করে। পরে রোববার অভিযান চালিয়ে ফাহিমকে আটক করা হয়।
অভিযোগে ওই তরুণী উল্লেখ করেন, চার মাস আগে ফেসবুকের মাধ্যমে ফাহিমেন সঙ্গে পরিচয় হয় তার। ওই সূত্রে প্রথমে প্রেম ও পরে ফাহিম তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। একপর্যায়ে ফাহিম তরুণীকে জানায়, দীর্ঘদিন ধরে সুইজারল্যান্ডে থাকায় বাংলাদেশে ফাহিমের ৬টি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট বন্ধ হয়ে আছে। এ কারণে তার কাছে নগদ কোনো টাকা নেই। পাশাপাশি সড়ক দুর্ঘটনায় মারাত্মকভাবে আহত হয়েছে এবং চোখে প্রাপ্ত জখমের উন্নত চিকিৎসার জন্য তার কাছে পর্যাপ্ত টাকা নেই। এভাবে প্রতারণা করে তরুণীর কাছ থেকে তিন ধাপে ডাচ বাংলা ব্যাংকের একটি অ্যাকান্টের (আল আমিন) মাধ্যমে প্রায় ৮লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। প্রতিশ্রæতি অনুযায়ী বিয়ে না করা এবং টাকা ফেরত দিতে গড়িমশি করার একপর্যায়ে ট্রতারিত ওই তরুণী গত বছরের ২৪ ডিসেম্বর রাজধানীর সূত্রাপুর থানায় একটি জিডি ও র‌্যাব-১০ এর কাছে লিখিত অভিযোগ দেন।
আশরাফুল হক আরো বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর ত্যত প্রযুক্তির ব্যবহার ও তদন্ত করে জানা যায়, প্রতারক ফাহিম আলআমিন নামে বিভিন্ন ব্যাংকে একাউন্ট খুলে তার প্রতারণার শিকার তরুণীদের কাছ থেকে অর্থ সংগ্রহ করতো। ফেসবুকে মাহবুব সালাম ফাহিম নামের আইডি থেকে বিভিন্ন সময় মেয়েদের প্রতারিত করে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে টাকা হাতিয়ে আসছে। সে নিজেকে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত জনৈক একজন মেজর জেনারেলের ছেলে হিসেবে পরিচয় দিয়ে থাকে। এ পরিচয়ে সে ভ‚য়া জাতীয় পরিচয়পত্রও তৈরি করে। ফাহিম নিজেকে একজন প্রাক্তন বুয়েটিয়ান, অ্যাপল কোম্পানীর নেটওয়ার্ক ইঞ্জিনিয়ার, সওইজারল্যান্ডের জুরিখ থেকে পিএইচডিকৃত এবং কুমিল্লা ক্যাডেট কলেজের সাবেক ছাত্র হিসেবে পরিচয় দিতো। ফাহিমের ফেসবুক আইডি অনুসন্ধানে জানা যায়, ফাহিম বিগত কয়েক বছরে ফেসবুকের মাধ্যমে ৫০জন তরুণীর সঙ্গে ভ‚য়া পরিচয়ে প্রণয়ের সম্পর্ক গড়ে তোলে।
র‌্যাব-১০ এর কর্মকর্তা মেজর আশরাফুল জানান, ফাহিম জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন, তিনি এসএসসি পর্যন্ত লেখাপড়া করেছেন। তার বাবা একসময় কৃষি কাজ করলেও বর্তমানে অবসর। তার অন্যদুই ভাইয়ের একজন কৃষক ও অপরজন গ্রামে ওষুধের দোকানদার। ফাহিম ২০১৫ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত সৌদি আরবের প্রবাস জীবনে গাড়ী চালকের কাজ করেছেন। ব্যক্তি জীবনে ফাহিম দুইবার বিয়ে করেছেন ও সন্তানসহ রাজধানীর রায়েরবাগ এলাকায় থাকেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত