প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চা-চক্রে না গিয়ে আলোচনার সুযোগ হারাচ্ছে ঐক্যফ্রন্ট

হ্যাপি আক্তার : নির্বাচনের গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর চা-চক্রের দাওয়াতে যাচ্ছে জাতীয় পার্টি, যুক্তফ্রন্টসহ যাচ্ছে বেশ কটি দল। তবে আমন্ত্রণে সাড়া না দিয়ে, সংলাপে না যাবার পক্ষে বিএনপি-ঐক্যফ্রন্ট। আওয়ামী লীগ নেতারা বলছেন, আমন্ত্রণে সাড়া না দিয়ে রাজনৈতিক দাবি দাওয়া নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে অনানুষ্ঠানিক আলোচনার সুযোগও হারাচ্ছে ঐক্যফ্রন্ট তথা বিএনপি। ডিবিসি নিউজ।

নির্বানের আগে যে ৭৫টি রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সংলাপ করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, তাদের সবাইকে এবার গণভবনে চা-চক্রের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন তিনি। এই দাওয়াতে সাড়া দিচ্ছে জাতীয় পার্টিসহ মহাজোটের শরিকরা। যাচ্ছে ইসলামী ঐক্যজোটও।  ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান আবদুল লতিফ নেজামী বলেছেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর এই দাওয়াতে অংশ নিবো। তবে সেখানে আমাদের প্রত্যাশার কিছু নেই। আমরা মনে করি, জাতীয় গুরুত্বপূর্ণ ইস্যুতে সবার ঐক্যমত থাকা জরুরী।
আমন্ত্রণে সাড়া না দেয়ায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগের নেতারা বলছেন, সংলাপে গেলে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে অনানুষ্ঠানিক আলোচনার সুযোগও পেতেন তারা।

আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ বলেন, চা-চক্রের মধ্য দিয়ে ব্যক্তিগত ও রাজনৈতিক আলোচনাও হতে পারে। আমরা মনে করি, তারা এই আলোচনার মাধ্যমে তাদের বিভিন্ন সমস্যা কাছে তুলে ধরতে পারবেন। এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী তাদের কোনো সিদ্ধান্তও দিতে পারেন। আওয়ামী লীগ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, খালেদা জিয়ার ছোট ছেলে মারা যাওয়ার পর প্রধানমন্ত্রী তাকে শোক জানানোর জন্য গেলেও সেখানে তাকে প্রবেশ করতে দেয় হয়নি।

এটি চরম অসৌজন্যমূলক আচরণ। তবে আমাদের বিশ্বাস অতীতের তাদের এসব আচরণ থেকে শিক্ষা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর চা-চক্রের দাওয়াতে তারা অংশ নিবেন। নির্বাচনের পর সব রাজনৈতিক দলের সঙ্গে চা-চক্র আয়োজন করেছেন প্রধানমন্ত্রী, যা দেশের ইতিহাসে নজিরবিহীন বলছে আওয়ামী লীগ। ঐক্যফ্রন্ট প্রহসন দাবি করে এরই মধ্যে গণভবনে আনুষ্ঠানিক চিঠি দিয়ে না যাওয়ার কারণ জানিয়েছে। সম্পাদনা : জামাল

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত