প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আশুলিয়ায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ট্রাক নদীতে ; নিহত ৪

আমিনুল ইসলাম, আশুলিয়া: বাইপাইল-আব্দুল্লাহপুর মহাসড়কের আশুলিয়ার মরাগাঙ্গ এলাকায় ইট বোঝাই ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে তুরাগ নদীতে পড়ে চারজন নিহত হয়েছেন। ফায়ার সার্ভিসের ৫ টি ইউনিট ও দুইটি ডুবরি দল ঘটনাস্থলে পৌছে প্রায় ৪ঘন্টার চেষ্টায় দুর্ঘটনাকবলিত ট্রাকটি উদ্ধার করে।

নিহতের মধ্যে চালক ও ভাটার নিরাপত্তা প্রহরী এবং দুইজন শ্রমিক রয়েছেন। এঘটনায় আহত অবস্থায় আরো তিন জনকে ইস্ট ওয়েস্ট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার ভোর ৬টার দিকে আশুলিয়ার মরাগাঙ্গ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- শেরপুরের ঝিনাইগাতি উপজেলার মুজাহিদ (২৫) ও একই এলাকা শাহিন (৩৫)। তারা আশুলিয়া এলাকায় ভাড়া থেকে স্থানীয় একটি ইটভাটায় কাজ করতেন। অপর দুই লাশের মধ্যে রয়েছেন শ্রমিক সিরাজগঞ্জের উল্লাহপাড়া উপজেলার আরিফ হোসেন (২৬) ও ভাটার নিরাপত্তা প্রহরী জামালপুরের আব্দুল কাদের (৪০)।

প্রত্যক্ষদর্শী ইটভাটার অন্যান্য শ্রমিকরা জানায়, ভোরে ইট বোঝাই ট্রাকটির ভিতরে চালকসহ চার জন ও বাইরে আরো তিন জন আরোহী ছিল। ট্রাকটি শাখা সড়ক দিয়ে যাওয়ার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পার্শ্ববর্তী তুরাগ নদীতে পড়ে যায়। এসময় ট্রাকের উপরে থাকা তিন শ্রমিক সাঁতরে উঠে আসলেও বাকী চার জন পানির তলদেশে ট্রাকের মধ্যেই আটকে পড়ে। স্থানীয়দের খবরে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল ঘটনাস্থলে পৌছে উদ্ধার কাজ শুরু করে।

উত্তরা ফায়ারসার্ভিসের স্টেশন অফিসার শফিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সকালে স্থানীয়দের খবরে উত্তরা ফায়ার সার্ভিসের দুইটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌছে উদ্ধার কাজ শুরু করে। কিন্তু ট্রাকটি পানির তলদেশে চলে যাওয়ায় তা উদ্ধার করা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে। পরে টঙ্গী ফায়ার সার্ভিসের আরো তিনটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌছে উদ্ধার কাজে অংশ নেয়। এরপর সকাল সাড়ে ৯টার দিকে মুজাহিদ ও কাদের নামে দুই জনের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আরিফ ও শাহিন নামে নিখোঁজ আরো দুই জনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

উত্তরা ও টঙ্গী ফায়ার সার্ভিসের জোন কমান্ডার মানিকুজ্জামান বলেন, খাদের গভীরতা প্রায় ৪০ ফুট, ঠান্ডা পানি ও কুয়াশার কারণে ট্রাকটি উদ্ধার করতে বিলম্ব হয়েছে। তবে নিখোঁজের স্বজনদের দেওয়া তথ্য মতে প্রথমে ট্রাকের মধ্যে আটকে থাকা দুই জনের মরদেহ উদ্ধার করেন তাদের ডুবুরি দল।

সর্বাধিক পঠিত