প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সরকারি নির্দেশ অমান্য করেই এখনো চলছে কোচিং সেন্টার

সাজিয়া আক্তার : প্রশ্নফাঁসসহ নানা অনিয়ম বন্ধে এসএসসি পরীক্ষার সময় একমাস কোচিং বন্ধ রাখার সরকারি নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। কিন্তু বেশ কয়েকটি কোচিং সেন্টার সে নির্দেশনা মানছে না। এছাড়া, ভিন্ন আঙ্গিকে কোচিং দিয়ে যাচ্ছেন স্কুল এবং কলেজের শিক্ষকরাও। সূত্র : ডিবিসি টেলিভিশন

রাজধানীর ধানমন্ডির ১৫ নম্বরে মিনা বাজারের পেছনে ৯ নম্বর সড়কের ৫২/ এ নম্বর বাড়িতে গিয়ে দেখা যায় সেখানে এখনও কোচিং চলছে। এখানে একটি কোচিং সেন্টার রয়েছে তার বাইরে থেকে বোঝার উপায় নেই। ভবনের ভেতরে গিয়ে দেখা যায় বেশ কয়েকটি কক্ষে দিব্যি কোচিং চালিয়ে যাচ্ছে ম্যাবস একাডেমিক কেয়ার নামের প্রতিষ্ঠানটি।

কোচিংটিতে ক্লাস নেয়া শিক্ষক মনিরাজ বলেন, শিক্ষার্থীদের কোনো কোনো বিষয় সমাধানের জন্য মাঝে মাঝে ক্লাসের প্রয়োজন হয়। স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থীরা যখন কোনো বিষয় সমাধান করতে পারেনা তখন তারা আসছে। তাই তাদের সমস্যা সমাধানের জন্যই কোচিং আসা।

কোচিং শিক্ষকের দেয়া বক্তব্য যে সম্পূর্ণ মিথ্যা তার প্রমাণ পাওয়া গেল এখানকার শিক্ষার্থীদের কথায়।

শিক্ষার্থীরা জানান তারা কোচিং করতেই এসেছেন। শিক্ষার্থীরা জানান প্রতিদিনই ক্লাস হয়। আর রবিবার কোচিং সেন্টারটির সাপ্তাহিক বন্ধ ছিলো, এতেই বিষয়টা পরিষ্কার হয়ে যায় সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে চলছে কোচিং ব্যবসা।

রাজধানীর অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকই এভাবে কোচিং চালাচ্ছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। অভিভাবকরা জানান, কোচিং বাণিজ্য চালানো শিক্ষকদের মাধ্যমেই ফাঁস হচ্ছে প্রশ্ন। তাই তারা এসব প্রতিষ্ঠান নিষিদ্ধের দাবিও জানান।

প্রশ্নফাঁস রোধে সরকারি নির্দেশনায় ২৭ শে জানুয়ারি থেকে বেশিরভাগ কোচিং সেন্টারই বন্ধ রাখা হয়েছে। তবে, সব কোচিং বন্ধ না হলে সুফল মিলবেনা বলেও মনে করেন সংশ্লিষ্টরা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত