প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

জামায়াতের প্রার্থীতা বাতিলের দাবিতে ইসিকে চিঠি দিয়েছে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা

শিমুল মাহমুদ: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে যুদ্ধাপরাধী সংগঠন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামের নেতাদের প্রার্থীতা বাতিলের দাবিতে নির্বাচন কমিশকে চিঠি দিয়েছে “গৌরব ৭১” নামের সংগঠনটি। শনিবার দুপুর ১২টায় মনিরুল ইসলাম মনির সভাপতিত্বে ৮ সদস্য বিশিষ্ট প্রতিনিধি দল নির্বাচন কমিশনের কাছে এই চিঠি পৌঁছে দেয়।

এর আগে সকাল ১১টায় জাতীয় সংসদ ভবন সামনে জড়ো হয় মুক্তিযোদ্ধা এবং শহিদ বুদ্ধিজীবী পরিবারের সদস্যসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ। পথযাত্রায় ‘মুক্তিযুদ্ধের বাংলায় জামায়াত-শিবির এর ঠাই নাই’, ‘বঙ্গবন্ধুর বাংলায় জামায়াত শিবিরের ঠাই নাই’, সংবলিত প্ল্যাকার্ড নিয়ে স্লোগান দিতে দিতে নির্বাচন কমশনের অভিমুখে পদযাত্রা করে।

“গৌরব ৭১” এর আয়োজনে এই পথযাত্রা সংক্ষিপ্ত বক্ত্যবে মুক্তিযোদ্ধা জহির উদ্দিন জালাল ( বিচ্ছু জালাল) বলেন, আজকে শহিদ পরিবারের সন্তানেরা বিবেককে তাড়না দিচ্ছে, আমার সহযোদ্ধা যারা জীবন দিয়েছে, তাদের আমরা কি জবাব দেবো? সেই প্রশ্ন রাখছি নির্বাচন কমিশনের কাছে। আমি অবিলম্বে জামায়াতের প্রার্থীতা বাতিলের আহবাণ জানাচ্ছি।

শহিদ বুদ্ধিজীবী পরিবারের সন্তান নূসরাত চৌধুরী বলেন, ছোট বেলা থেকে জ্ঞ্যান হবার পরে যখন স্কুল কলেজে গেছি তখন বঙ্গবন্ধু নাই। ১৯৭৫ সালে বঙ্গবন্ধু হত্যার পরে স্বচক্ষে দেখলাম আমার বাবার খুনিদের মন্ত্রী, এমপি এমন কি প্রেসিডেন্ট করা হলো। এবং তারা ক্রমাগত আমাদের মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে প্রসক্রিডিউট করেছে। প্রতিদিন বেঁচে থাকায় আমাদের জন্য ছিলো সংগ্রাম, তারপরও আমরা রাজপথ ছাড়িনি। কিন্তু বারবার আমরা দেখছি একটি দল আমাদের বাবাদের হত্যাকারীদের, বোনদের ধর্ষণকারীদের সুযোগ করে দিয়েছে রাজনীতিতে আসবার।
এটা আমাদের শুধু শোকের কথা তা নয়। আমরা চাই এর একটা বিহিত হোক। এই দাবি আমাদের জনগণের কাছে।

প্রজন্ম একাত্তর এর সাধারণ সম্পাদক তৌহিদ রেজা নূর বলেন, আমরা কখনো যেনো ভুলে না যাই আমাদের মগজ থেকে যে ৭১ ভুলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা হয়েছে ৭৫ ‘রয়ে বঙ্গবন্ধুর হত্যার মধ্য দিয়ে। কিন্তু তারা ব্যর্থ হয়েছে। আজকে এই মুক্তিযুদ্ধের বিরোধী শক্তি জামায়াতের প্রার্থীতা বাতিলের দাবি এদেশের মানুষের দাবি, তারুণ্যের দাবি।

উল্লেখ সংবিধানের সঙ্গে গঠনতন্ত্র সাংঘর্ষিক হওয়ায় বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর নিবন্ধন অবৈধ ও বাতিল ঘোষণা করেছে হাইকোর্ট। এছাড়া একাত্তরের ভূমিকার জন্য জামায়াতে ইসলামীকে ‘ক্রিমিনাল দল’ আখ্যায়িত করে দেশের কোনো সংস্থার শীর্ষ পদে স্বাধীনতা বিরোধীদের থাকা উচিত নয় বলে মত জানিয়েছে আন্তজার্তিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত