প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রধানমমন্ত্রী: নির্বাচন সামনে রেখে পুলিশ কর্মকর্তাদের হত্যার পরিকল্পনায় বিএনপি-জামায়াত

ঢাকা ট্রিবিউন :  নির্বাচনকে সামনে রেখে বিএনপি ও জামায়াত পুলিশ কর্মকর্তাদের হত্যা এবং তাদের ঘুষের মাধ্যমে প্রভাবিত করার পরিকল্পনা নিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বৃহস্পতিবার (২০ ডিসেম্বর) নিজের সরকারি বাসভবন গণভবনে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।

অনুষ্ঠানে অবসরপ্রাপ্ত সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “বিএনপি ও জামায়াত এই দুই পরিকল্পনা নিয়েছে। লন্ডনে থাকা এক অপরাধী এই পরিকল্পনা পাঠিয়েছে”।

অনুষ্ঠানে একাদশ সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে আইজিপি (পুলিশের মহাপরিদর্শক) থেকে এএসপি (সহকারী পুলিশ সুপার) পদমর্যাদার মোট ৮৮ জন অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আওয়ামী লীগের প্রতি সমর্থন জানান। তাদের মধ্যে রয়েছেন ১৫ জন আইজিপি, একজন পাকিস্তান পুলিশ সার্ভিসের (পিএসপি) কর্মকর্তা, ১৯ জন অতিরিক্ত আইজিপি, ২৪ জন ডিআইজি, তিনজন অতিরিক্ত ডিআইজি, ১১ জন এআইজি ও এসপি এবং ১৫ জন অতিরিক্ত এসপি।

বিএনপি-জামায়াত প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বলেন, “এখন নির্বাচনকে সামনে রেখে কয়েকজন সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তাকে হত্যার লক্ষ্য রয়েছে তাদের”।

গত নির্বাচনের সময় বিএনপি-জামায়াতের সহিংসতা ও আগুন সন্ত্রাস নিয়ে তিনি বলেন, “খুনি ও আগুন সন্ত্রাসীরা পুলিশ সদস্যদের নির্দয়ভাবে পুড়িয়ে ও পিটিয়ে মেরেছিল। তারা কত ভয়ঙ্কর কাজ করেছিল তা চিন্তাও করা যায় না”।

এর আগে অনুষ্ঠানের শুরুতে পিএসপি কর্মকর্তা বীরবিক্রম মাহবুব উদ্দিন আহমেদ ও এ কে এম শহীদুল হকসহ চারজন সাবেক আইজিপি অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তাদের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীকে ফুলের তোড়া উপহার দিয়ে শুভেচ্ছা জানান।

এ কে এম শহীদুল হকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে কয়েকজন সাবেক আইজিপি বক্তব্য দেন এবং নির্বাচনে আওয়ামী লীগের পক্ষে তাদের একাত্মতা প্রকাশ করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত