প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে দরকার : আসলাম সানী

আমিরুল ইসলাম : দেশের মধ্যে উন্নয়নের অগ্রযাত্রাকে অব্যাহত রাখতে হলে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে ক্ষমতায় আনতে হবে বলে মনে করেন ছড়াকার আসলাম সানী।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, পৃথিবীর সব দেশের রাজনৈতিক সংস্কৃতি আলাদা। একাত্তুরে রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের মাধ্যমে আমাদের দেশ স্বাধীন হয়েছে। ত্রিশ লক্ষ শহীদ ও দু’লক্ষ মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে এদেশ স্বাধীন হয়েছে। সেখানে আমাদের একটা কমিটমেন্ট থাকতেই হবে। কোনোভাবেই সচেতন মানুষ, আগামী প্রজন্ম চাইবে না, যুদ্ধাপরাধী বিশেষ করে আলবদর, আলশামস ও তাদের দোসররা যেন এদেশের ক্ষমতায় না আসতে পারে। এবার সকল রাজনৈতিক দল নির্বাচনে অংশ্রগহণ করছে। গত দশ বছরে চোখের সামনে যে উন্নয়ন, শান্তি, সম্প্রীতি সাধারণ মানুষ দেখেছেন তারা সেটা অবশ্যই অব্যাহত রাখতে চাইবেন। গ্রাম বাংলার পরিশ্রমী মানুষ তাদের ফসলের নিরাপত্তা চায়, ফসল উঠলে যেন তারা তার সঠিক মূল্যটা পায়, এটাই তাদের চাওয়া। আজকে মানুষের আশ্রয়ন হয়েছে, একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের মাধ্যমে বহুলোক উপকৃত হয়েছে। যাদের জমি আছে তাদেরকে ঘর তোলার জন্য টাকা দেওয়া হবে। বাংলাদেশের মতো দেশে এটা অভিনব ব্যাপার।

এখন যদি রাজাকাররা বলে আমরা গণতন্ত্র পাচ্ছি না তাহলে কীভাবে হবে? অনেক দেশে যুদ্ধাপরাধীদের নাগরিকত্ব বাতিল করা হয়। তাদের দ্বিতীয় শ্রেনির নাগরিকত্ব দেওয়া হয়। তাদের সম্পদ বাজেয়াপ্ত করা হয়। আমাদের দেশের সেনা শাসকরা বার বার গণতন্ত্র হরণ করেছে। এদেশে বর্তমান প্রজন্ম শিক্ষার ব্যাপক সুযোগ পাচ্ছে। পাহাড়ি জনগোষ্ঠীও প্রায় সমান সুযোগ পাচ্ছে। এখন প্রতিটি কর্মক্ষেত্রে পাহাড়ি জনগোষ্ঠীরা কাজ করার সুযোগ পাচ্ছে। বহু বছরের সিটমহল সমস্যার সমাধান হয়েছে। তারা বলতে পারতো না যে তারা কোন দেশের নাগরিক। আজকে সমূদ্র বিজয় হয়েছে। একটা জনস্বার্থের সরকার ক্ষমতায় থাকলেই এসব হয়। বাংলাদেশ পুরোবিশে^ একটি মানবিক রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে, এগারো লক্ষ রোহিঙ্গাকে থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা করে। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি ক্ষমতায় না আসলে স্বাধীনতা বিরোধীরা এদেশের মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে ছাড়বে না। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার সরকার ক্ষমতায় থাকলে সাধারণ মানুষ শান্তিতে থাকবে। তাই আওয়ামী লীগের এদেশে বার বার ক্ষমতায় থাকা প্রয়োজন বলে মনে করেন এই ছড়াকার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত