প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শুরুতেই কমিশনের অবস্থান দৃঢ় থাকলে, আচরণবিধি লঙ্ঘন এড়ানো যেতো : সাখাওয়াত হোসেন

হ্যাপি আক্তার : দেশের বিভিন্ন জায়গায় ভোটের মাঠে প্রার্থী-সমর্থকদের বিরুদ্ধে নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ রয়েছে বিস্তর। এছাড়া প্রায়ই খবর মিলছে, প্রতিপক্ষের ওপর হামলার। তবে, তাৎক্ষণিকভাবে বিষয়গুলোর বিরুদ্ধে তেমন কোনো পদক্ষেপই নেই নির্বাচন কমিশনের। সাবেক নির্বাচন কমিশনার ড. সাখাওয়াত হোসেন বলেন, শুরু থেকেই কমিশনের অবস্থান দৃঢ় থাকলে, এই পরিস্থিতি এড়ানো যেতো। সূত্র চ্যানেল২৪।

নির্বাচনি প্রচারণায় কমবেশি সব দলের বিরুদ্ধেই উঠছে আচরণ বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ। তার মধ্যে রয়েছে,ঘণ্টার পর ঘণ্টা রাস্তা বন্ধ করে প্রচারণা, দেয়াল জুড়ে লাগানো হয় পোস্টার। আবার পুলিশ প্রহরায় নিজের পক্ষে ভোট চাইছেন কোনো কোনো প্রার্থী। এসব দেখে সাধারণের বোঝা দায় আসলে কী আছে আচরণবিধিতে। পোস্টার ছেঁড়াসহ নানা অভিযোগ আসছে নির্বাচন কমিশনে। কিন্তু এখন পর্যন্ত এসব অভিযোগের বিরুদ্ধে দৃশ্যমান কোনো পদক্ষেপ নিতে দেখা যায়নি নির্বাচন কমিশনকে।

প্রথম থেকে নির্বাচন কমিশন শক্ত অবস্থানে থাকলে, এমন পরিস্থিতি সামাল দেয়া সহজ হতো বলে উল্লেখ করে সাবেক নির্বাচন কমিশনার ড. সাখাওয়াত হোসেন বলেন, প্রচারণার মাঠে প্রার্থী-সমর্থকদের যে নির্বাচনী আচরণবিধি তা নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে। নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাবার মূল কারণ হলো, প্রথম প্রথম যখন নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করে প্রতিপক্ষের ওপর হামলাগুলোর ঘটনা ঘটছিলো, তখন নির্বাচন কমিশন শক্ত অবস্থান নিতে পারেননি। কমিশন কেন শক্ত অবস্থান নিতে পারেননি তা জানা নেই। তবে বিষয়টি নিয়ে কমিশন শক্ত ভূমিকায় দেখার প্রয়োজন ছিলো।
নির্বাচন কমিশন দুর্বলতা দেখালে, ফল যাই হোক তা নিয়ে প্রশ্ন তুলবে সবাই উল্লেখ করে তিনি বলেন, কমিশন দুর্বল হলে প্রতিষ্ঠানটি আরো ভেঙে যাবে। যার কারণে তারা দায়িত্ব পালন করতে পারবে না। তা না করতে পারলে সবাই মিলে নির্বাচন কমিশনারকে দোষারোপ করবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত