প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নির্বাচনী প্রচারণা কেন্দ্র ভাঙচুর করছে সরকারি দলের লোকজন : আব্দুর রহিম

মো. ইউসুফ আলী বাচ্চু : সরকারি দলের লোকজন নির্বাচনী প্রচারণায় ও প্রচারণা কেন্দ্র ভাঙচুর করছে বলে অভিযোগ করেছেন ঢাকা-১৫ ও ১৭ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ্ব মোহাম্মদ আব্দুর রহিম। বুধবার ১৯ ডিসেম্বর জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, যখন ইসি থেকে হয়রানি হয়ে মাঠে গেলাম নির্বাচনী প্রচারণা করতে। তখন মাঠে যাওয়ার পর আমাদের কর্মীদের গ্রেফতার করছে, নির্বাচনী প্রচারণার জন্য কেন্দ্র বানানোর চেষ্টা করছি, সেখানে ভাঙচুর ক‌রে‌ছে সরকারি দলের কিছু অপদার্থ কর্মীরা। আমার বিশ্বাস হয় না প্রধানমন্ত্রী এ ধরনের নির্দেশ দিবে কিনা। কিন্তু উনার দলের কিছু অপদার্থ কর্মীরা অতি উৎসাহী হয়ে এ কাজ করছে।

আমাদের পুলিশের মধ্যেও এখন মনে হয় বাণিজ্যনীতি ঢুকে গেছে। তারা অতি উৎসাহী হয়ে এখন ধড় পাকড়াও শুরু করেছে। বিনিময় আমরা যেন তাদের সমঝোতা করে ইত্যাদি ইত্যাদি।

আমি একজন শহীদ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান হিসেবে বিনয়ের সাথে অনুরোধ করব দেশটা কিন্তু আমাদের সবার। মিনিমাম একটা অবস্থান তৈরি করেন যাতে করে আমরা সবাই আমাদের সন্তানদের কাছে, পরিবারের কাছে মুখ দেখাতে পারে। আমরা স্বতন্ত্র প্রার্থী। এই স্বতন্ত্র প্রার্থী কেউ আপনি কথা বলার সুযোগ দেবেন না মাঠে, এটা তো হতে পারে না।

নির্বাচন কমিশনকে অপদার্থ বলে তিনি মন্তব্য করেন, ওটা একটা অপদার্থ প্রতিষ্ঠিত। ওখানে চিঠি কেন, একটা থুতু ফেলতেও ওখানে যাব না। আমরা যারা স্বতন্ত্র, তাদের কি যে কষ্ট দিয়েছে। এক শতাংশ ভোটের বিষয়কে সামনে এনে রিটার্নিং অফিসার আমাকে নাকচ করেছে। আমি এটার বিরুদ্ধে আপিল করে কমিশনার কাছে গিয়েছি, ছুঁড়ে ফেলে দিয়েছে। যখন শুনেছে স্বতন্ত্র প্রার্থী, অ না এটা হবে না।

তিনি সংবাদ সম্মেলনে আরও বলেন, আমি সরকারী দলের সন্ত্রাসী দ্বারা নির্বাচনের প্রচার কাজে বাধা থেকে মুক্তি পায়নি। আমার কর্মীরা প্রতিনিয়ত সরকারের সন্ত্রাসী দ্বারা ভয়, ভীতি এবং বাধাপ্রাপ্ত হচ্ছে। শুধু তাই নয় আমার কর্মীদের পুলিশ দ্বারা গ্রেফতার করা হয়েছে এবং হচ্ছে। কর্মীদের ঘর দরজা এবং ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান ভেঙ্গে দিচ্ছেন। সরকার জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে কতটা দেউলিয়া তার প্রমান এখানে।

সংবাদ সম্মেলন শেষে তিনি নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেন ঢাকা-১৫ ও ১৭ আসনের জন্য। সংবাদ সম্মেলনে তা নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত