প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

১৯৮৪ সালের শিখ-বিরোধী দাঙ্গায় কংগ্রেস নেতার যাবজ্জীবন

সৌরভ নূর : ভারতে ৩৪ বছর আগেকার ভয়াবহ শিখ-বিরোধী দাঙ্গাতে সরাসরি যুক্ত থাকার অভিযোগে সোমবার বিরোধী দল কংগ্রেসের এক সিনিয়র রাজনীতিবিদ ‘সজ্জন কুমার’কে যাবজ্জীবন কারাদ- দিয়েছে দিল্লি হাইকোর্ট। সূত্র: বিবিসি বাংলা

জাঠ সম্প্রদায়ের প্রভাবশালী নেতা সজ্জন কুমার সে সময় রাজধানীর শাসক-দলীয় এমপি ছিলেন। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি নিজে দাঁড়িয়ে থেকে পাঁচ সদস্যের এক শিখ পরিবারকে জ্বালিয়ে দেওয়ার ঘটনায় তদারকি করেছিলেন।

সজ্জন কুমার এর আগে এই মামলায় নিম্ন আদালতে রেহাই পেয়েছিলেন। দাঙ্গার কুড়ি বছর বাদে ২০০৪ সালে পার্লামেন্টে এমপি হিসেবে নিয়ে এসে তাকে রাজনৈতিকভাবে পুনর্বাসনও করেছিলো কংগ্রেস। আদালতও এই ঐতিহাসিক রায়ে বলেছে, রাজনৈতিক পৃষ্ঠপোষকতার কারণেই অপরাধীরা এতদিন বুক ফুলিয়ে ঘুরে বেড়াতে পেরেছে।

১৯৮৪ সালে ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী তার শিখ দেহরক্ষীদের হাতে নিহত হওয়ার পর দিল্লিসহ সারা ভারত জুড়ে তিন হাজারেরও বেশি শিখকে হত্যা করা হয়েছিলো। সেই অভিযোগে এই প্রথম কোনো অভিযুক্ত বড় মাপের নেতার সাজা হলো।

দাঙ্গাপীড়িত বিভিন্ন শিখ পরিবারের সদস্যরা বলেছেন, প্রায় তিন যুগ পরে হলেও ওই হত্যাকা-ে জড়িতদের যে অবশেষে সাজা হচ্ছে এটাই একমাত্র সান্তনা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত