প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বেশির ভাগ নারীই ভোট দেয়ার ক্ষেত্রে নিজস্ব সিদ্ধান্ত নিতে পারেন না : রাশেদা রওনক খান

খায়রুল আলম : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃ-তত্ত্ব বিভাগের শিক্ষক ড. রাশেদা রওনক খান বলেছেন, নির্বাচনের পরিবেশ যদি সুষ্ঠু, স্বাভাবিক এবং নিরপেক্ষ হয়, তাহলে নারী-পুরুষ নির্বিশেষে সবাই তাদের ভোটটি নিশ্চিত করতে পারবে। আর নির্বাচনের পরিবেশের উপর নির্ভর করবে ফলাফল।

এ প্রতিবেদকের সাথে আলাপের সময় তিনি বলেন, আমাদের এ পুরুষতান্ত্রিক সমাজ ব্যবস্থায় বেশির ভাগ নারীই ভোট দেয়ার ক্ষেত্রে নিজস্ব সিদ্ধান্ত নিতে পারেন না। ফলে একজন নারী তার পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দেয়ার সিদ্ধান্ত যেদিন নিতে পারবেন, যে দিন স্বাধীনভাবে বলতে পারবেন আমি এ প্রার্থীকে ভোট দেবো-সেদিন তাদের ভোটটি ফলাফলের ক্ষেত্রে ভালো ভূমিকা রাখবে। যদিও এখনো তাদের ভোট ফলাফলের জন্য বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ। কারণ দেশের ভোটারের প্রায় অর্ধেকই নারী। কিন্তু তারা নিজের সিদ্ধান্ত নিজে নিতে পারছে না। তারা স্বামী, ভাই, বাবা দ্বারা প্রভাবিত হচ্ছেন। ভোটারের দিক থেকে যেহেতু তারা সমানে সমান। সিদ্ধান্তের দিকেও সমানে সমান থাকতে হবে। প্রার্থীদের কাজ হবে নারী ভোটারদের নিজের সিদ্ধান্তে ভোট দেয়ার ব্যবস্থা করা। তবে সেটি করার জন্য শুধু ভোটের আগের সময়গুলো যথেষ্ট নয়। সারা বছর ধরে নারীদের ভোটাধিকার নিয়ে কাজ করতে হবে। আমাদের পুরুষতান্ত্রিকতা বা কুসংস্কার থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। নারীদের এ জায়গাটি থেকে বের করে না আনলে তারাও সিদ্ধান্ত নিতে পারবে না। তাই সব সময়ে আমাদের এমন একটি সমাজ গঠনের চিন্তা করতে হবে, যেখানে শুধু ভোট নয়, সব ক্ষেত্রেই নারীরা নিজেদের সিদ্ধান্তটি স্বাধীনভাবে নিতে পারে। এ মুহূর্তে অনেকটাই বোঝা যাচ্ছে, আমরা একটি ভালো নির্বাচন পেতে যাচ্ছি। মানুষের ভেতর ভোটের আমেজ চলে এসেছে। চারদিকে এখন ভোট নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। সব দলের প্রার্থীরাও প্রচারণা চালাচ্ছেন। সুতরাং একটি সুষ্ঠু, সুন্দর ভোট আমাদের কাম্য।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত