প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নির্বাচনের আগে পুরনো আগুন সন্ত্রাস প্রচার করছে মিডিয়া : এ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ

মারুফুল আলম : বিএনপির আইনবিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া বলেছেন, পুলিশ গুলি করছে। প্রকাশ্য দিবালোকে সন্ত্রাস হচ্ছে। এসবকে পাশ কাটিয়ে মিডিয়া দেখাচ্ছে পুরনো আগুন সন্ত্রাস। এভাবে জনগণের অনুকম্পা নেবেন আর জনগণ ধানের শীষে ভোট দেবে না? শনিবার সময় টিভির টকশোতে তিনি এভাবেই কথাগুলো বলেন।

তিনি বলেন, বিএনপি শান্তিপ্রিয় গণতান্ত্রিক দল। বিএনপি সন্ত্রাসী কার্যক্রমে বিশ্বাসী নয়। আগুন-সন্ত্রাস আমরা করেছি ঐ কনসেপ্টটি ঠিক নয়। সারাদেশের মানুষ জানে, আমরা ৩ মাস শান্তিপূর্ণ আন্দোলন দিয়েছিলাম। ঐ আন্দোলনে আমাদের কোনো নেতাকর্মী হাতেনাতে গ্রেফতার হওয়ার ঘটনাও নেই। বরং তারা নিজেরা আগুন-সন্ত্রাস করে আমাদের উপর দোষারোপ করেছে। আর মিডিয়াও তাদের মতো বলেছে উল্টোটা। তাই আমরা শান্তিপূর্ণ আন্দোলন বন্ধ করে দিয়েছি।

গণমাধ্যমকর্মীকে ড. কামাল হোসেনের ‘খামোশ’ বলা প্রসঙ্গে মতামত চাইলে তিনি বলেন, মাওলানা ভাসানিও এই খামোশ শব্দটি ব্যবহার করতেন। এর বাংলা অর্থ দাঁড়ায় চুপ করো। গতকাল ড. কামালের গাড়িতে এ্যাটাক হয়েছে এবং বিভিন্ন কারণে তার শারীরিক মানসিক অবস্থা খারাপ ছিলো। তাছাড়া তিনি মুরব্বী মানুষ এবং এ ব্যাপারে তিনি দু:খ প্রকাশও করেছেন।

এ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ বলেন, সেপ্টেম্বর থেকে ৫ হাজারের ওপরে গায়েবী ও ভুয়া মামলা হয়েছে। ঘটনা ঘটেনি তারপরও ঐ মামলাগুলো হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধাদেরকে গুলি করা হচ্ছে। গাড়িতে হামলা করা হচ্ছে। নির্বাচনে জামায়াতের অংশগ্রণ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, জামায়াতের নিবন্ধন নেই। সবাই ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচন করছে। পিতা রাজাকার বলে সন্তান কখনো রাজাকার হয় না। নির্বাচন কমিশন কোনো নাগরিককে অবৈধ ঘোষণা করেনি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত