প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কাংখিত বাংলাদেশ আজও আমরা অর্জন করতে পারিনি : এমাজউদ্দিন

শিমুল মাহমুদ : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমাজ উদ্দীন আহমেদের ৮৬তম জন্মদিন ছিল আজ।জন্মদিন উপলক্ষে স্বাধীনতা ফোরামের আয়োজনে তার বাসভবনে সংবর্ধনা অনুষ্ঠার আয়োজন করা হয়। এবং দিনব্যাপী শুভাকাংখী-শুভানুধ্যায়ীদেও ফুলেল শুভেচ্ছা ও ভালোবাসায় অভিসিক্ত হয়েছেন।

অনুষ্ঠানে ড. এমাজ উদ্দীন আহমদ বলেন, যে বাংলাদেশ গড়ার জন্য দেশের শ্রেষ্ঠ সন্তানেরা জীবন দিয়ে মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিল সেই কাংখিত বাংলাদেশ আজও আমরা অর্জন করতে পারিনি। সেই কারনে হিংসা বিদ্বেষমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে আমাদেরকে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হতে হবে।

তিনি বলেন- প্রতিহিংসা-বিদ্বেশের রাজনীতির কারনে স্বাধীনতার লক্ষ থেকে আমরা পিছিয়ে আছি। তিনি শত্রুতা ভাবাপন্ন মনভাব পরিহার করে বন্ধুত্বপুর্ণ আচরন সমাজে প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে সামনের দিকে সকলকে ভুমিকা পালনের আহ্ববান জানান। ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচন কে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন বলে অভিহিত করে তিনি বলেন-৩০ ডিসেম্ববর বাংলাদেশকে সামনে এগিয়ে নেয়ার ক্ষেত্রে অনেক বড় অবদান রাখবে।

ফোরাম সভাপতি আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহ’র সভাপতিত্বে এতে আলোচনায় অংশ নেন ঢাকাবিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য ড.আনোয়ারুল্লাহ চৌধুরী, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান এডভোকেট আহমদ আজম খান, সাংবাদিক নেতা কবি আবদুল হাই শিকদার,পরিবারের পক্ষ থেকে তার মেয়ে ড. দিলশাদ রওশন আরা নাজনীন প্রমূখ।

এছাড়াও ফুলেল শুভেচ্ছা জানান, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, খোন্দকার আকবর হোসাইন, জাতীয় গনতান্ত্রিক মঞ্চের সভাপতি ইসমাইল তালুকদার খোকন, জিয়া নাগরিক ফোরামের সভাপতি মিয়া মোঃ আনোয়ার, ডেমেক্রেটিক কাউন্সিল সভাপতি এম এ হালিম, মানবাধিকার পরিষদ সভাপতি আ স ম মোস্তফা কামাল, ঘুরে দাঁডাও বাংলাদেশের সভাপতি কাদের সিদ্দিকী, অপরাজেয় বাংলাদেশের সাধারন সম্পাদক ইসমাইল হোসেন সিরাজী, যুবদল নেতা সাবা করিম লাকী, মোঃ সুমন প্রমূখ।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে ড. আনোয়ারুল্লাহ চৌধুরী বলেন- এমাজ উদ্দীন আহমদ দেশের অমূল্য সম্পদ, জাতি গঠনে তার অবদান দেশবাসী সবসময় স্বরন রাখবে। উন্নয়নের নামে যারা গনতন্ত্রকে কবর দিতে চান তাদের ভাষা স্বৈরাচারী আইযুবের প্রতিধ্বনি মাত্র।

আহমদ আজম খান বলেন-দেশের ক্লান্তিকালে এমাজ উদ্দীন আহমদের অবদান অভিবাবকের মত। তাকে আমরা যথাযত সম্মান করতে পারছি না।

আবদুল হাই শিকদার বলেন- ড. এমাজ উদ্দীন আহমদ দেশের আলোক বর্তিকা। তাকে মুল্যয়ন করতে ব্যর্থ হলে জাতি হিসেবে আমরা ক্ষতি গ্রস্থ হব। পরে এমাজ উদ্দীন আহমদ সকলকে নিয়ে কেক কাটেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত