প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রাজধানীতে পাঁচ তলা থেকে ব্যবসায়ীকে ফেলে হত্যার অভিযোগ

মোস্তাফিজুর রহমান : রাজধানীর পশ্চিম মালিবাগে পাওনা টাকাকে কেন্দ্র করে এক ব্যবসায়ীকে পাঁচ তলা থেকে ফেলে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নিহত ব্যবসায়ীর নাম মোহাম্মদ কে এম মামুনুর রশিদ (২৬)।

শুক্রবার দুপুরে মালিবাগে সিরাজুল ইসলাম মেডিকেলের পেছনে জিএম প্লাজায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় দুই জনকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত মামুনুর মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার কেএম জালাল উদ্দিনের ছেলে। ওই ভবনের পাঁচতলায় স্ত্রী-সন্তানকে নিয়ে থাকতেন। নিজের বাসায় ক্রেস্টসহ বিভিন্ন সামগ্রী বানিয়ে বিভিন্ন জায়গায় সরবরাহ করতেন। তার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) মর্গে রাখা হয়েছে।

হাসপাতালে রশিদের বড় ভাই মোর্তুজা আলী রনি জানান, রশিদ বাসায়ই ব্যবসা করতেন। আর তার নিজের (রনি) ইট-বালুর ব্যবসা আছে এবং গুলশানে শোরুমও আছে। এই ব্যবসার সুবাদে ব্যবসায়ী ফরহাদ, আসাদ, ফরিদ, সুমন ও তাজুলের সঙ্গে পরিচয় হয় তাদের। ব্যবসায়িক লেনদেনও হয়। কিন্তু এ লেনদেন নিয়ে তাদের মধ্যে বিবাদ চলছিল। তার জেরেই শুক্রবার তারা বাসায় ঢুকে রনি ও রশিদকে মারধর করতে শুরু করেন। একপর্যায়ে পাঁচ তলার সিঁড়ির ফাঁকা জায়গা দিয়ে রশিদকে নিচে ফেলে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করেন রনি। পরে গুরুতর অবস্থায় রশিদকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে ঢামেক হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে তার মৃত্যু ঘটে।

রমনা থানার এসআই আমিনুল ইসলাম জানান, পাওনা টাকাকে কেন্দ্র করে এই হত্যাকাÐের ঘটনা ঘটেছে বলে জানতে পেরেছি। এ ঘটনায় ফরহাদ এবং আশিক নামের দুইজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তদন্ত সাপেক্ষে ঘটনার প্রকৃত কারণ যানা যাবে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত