প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ড. কামাল হোসেনকে দিয়ে জামায়াতকে মর্যাদা দেওয়া দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্রের অংশ : ওয়ালিউর রহমান

আশিক রহমান : সাবেক রাষ্ট্রদূত ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক ওয়ালিউর রহমান বলেছেন, ড. কামাল হোসেনকে দিয়ে জামায়াতকে মর্যাদা দেওয়া দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্রের অংশ। পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই গত নির্বাচনের আগে স্বীকার করেছিলো, বিএনপিকে অর্থ দিয়ে সহযোগিতা করেছে, আইডিয়া দিয়ে সাহায্য করেছে তারা। এবারও তাই করছে। তারা ড. কামাল হোসেনকে বিএনপির সঙ্গে পেয়ে অত্যন্ত আনন্দিত। ড. কামাল হোসেনকে দিয়ে জামায়াতকে মর্যাদা দেওয়া হয়েছে ষড়যন্ত্রের সবচেয়ে বড় পয়েন্ট এটাই। যিনি বাংলাদেশের সংবিধান রচনার সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি আরও বলেন, যারা আমাদের সংবিধান গ্রহণ করে না, যারা স্বাধীনতায় বিশ্বাস করে না, জামায়াত-শিবির, বিএনপিকে সঙ্গে করে ড. কামাল হোসেন সাহেব তাদের নৈতিক সমর্থন দিলেন। অথচ যে সমর্থনের বিরুদ্ধে একদিন তিনিই ছিলেন আগ কাতারে। কিন্তু বঙ্গবন্ধুর স্নেহধন্য, তার সঙ্গে ছিলেন তিনি। কিন্তু ড. কামাল হোসেন জীবনে যা কিছু অর্জন করেছিলেন, সমস্ত কিছু বিসর্জন দিয়ে আজকে জামায়াত-শিবিরকে বৈধতা দিচ্ছেন এই নির্বাচনের মাধ্যমে। এটা বাংলার ইতিহাসে বড় দুঃখজনক ও মর্মাহত ঘটনা হিসেবে চিহ্নিত হয়ে থাকবে।

এক প্রশ্নের জবাবে ওয়ালিউর রহমান বলেন, বঙ্গবন্ধু সপরিবারে নিহত হওয়ার পর ২১ বছর আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলো। তখনো চেষ্টা করা হয়েছিলো কি আওয়ামী লীগকে ধ্বংস করা যায়। ১৯ বার বা তারও বেশি আক্রমণ করা হলো শেখ হাসিনাকে হত্যার উদ্দেশে। এর মধ্যে ভয়ংকরতম হামলাটি হলো ২১ আগস্ট ২০০৪ সালে। আওয়ামী লীগকে নিচিহ্ন করে দেওয়ার ষড়যন্ত্র ছিলো একটা। আবারও ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করার। সেটা বিভিন্নভাবে, বিভিন্ন উপায়ে। কিছু বিদেশি শক্তিও এই অপতৎপরতার সঙ্গে জড়িয়েছে বলেও মনে করেন এই রাজনৈতিক বিশ্লেষক।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত