প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ব্যাংক রক্ষার ঘোষণা (সিপিডির)

রবিউল হাসান ইমন : আওয়ামী লীগ সরকারের টানা দুই মেয়াদে ব্যাংক থেকে প্রতারণার মাধ্যমে ২২ হাজার ৫০২ কোটি টাকা লোপাট করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বেসরকারি গবেষণা সংস্থা সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি)।

শনিবার দিবাগত রাতে চ্যানেল আইয়ের আজকের সংবাদপত্র অনুষ্ঠানে এমন মন্তব্য করেন গবেষক ও সম্পাদক মহিউদ্দীন  আহমেদ ।

তিনি আরো বলেন, সংস্থাটি বলেছে ব্যাংকের টাকায় অনিয়ম-দুর্নীতি হলেও সরকারের তরফ থেকে দৃশ্যমান ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। যাচাই-বাছাই ছাড়াই রাজনৈতিক প্রভাবে ঋণ দেওয়া হয়েছে। পরিচালনা পর্ষদে রাজনৈতিক বিবেচনায় নিয়োগ পেয়েছেন অনেকে। সার্বিকভাবে দেশের ব্যাংকিং খাতে ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে।

এ সময় তিনি আবারও বলেন,সিপিডির সম্মানীয় ফেলো ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্যের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংলাপে আরো  বক্তব্য দেন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আরো অনেকে। মূল প্রবন্ধে সিপিডির নির্বাহী পরিচালক ফাহমিদা খাতুন বলেন, দেশে খেলাপি ঋণের পরিমাণ এক লাখ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। সরকারি ব্যাংকগুলোতে এখন ২৮ শতাংশের বেশি ঋণখেলাপি। ব্যাংকের মালিক, পরিচালক ও এক শ্রেণির অসত্ ব্যাংকারের যোগসাজশে জনগণের আমানত দুর্নীতিবাজদের হাতে চলে যাচ্ছে। খেলাপি ঋণের কারণে মূলধন সংকটে পড়া এসব ব্যাংককে বছরের পর বছর ধরে অর্থ দিয়ে যাচ্ছে সরকার। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ, আইনের যথাযথ প্রয়োগের অভাব, ব্যাংকের পরিচালক থাকার শর্তে শিথিলতা, সর্বোপরি রাজনৈতিক সদিচ্ছার অভাবে ব্যাংকিং খাতে দুরবস্থা বেড়েই চলেছে। ব্যাংক খাতের সুরক্ষায় নির্বাচনের পর সিপিডি নাগরিক কমিশন গঠন করবে উল্লেখ করে দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেন, এই কমিশন ব্যাংক খাতের প্রকৃত চিত্র তুলে ধরবে। তিনি আরো বলেন, ব্যাংকিং খাত সবচেয়ে খারাপ সময় অতিক্রম করছে। এ খাত রক্ষায় নাগরিকদের সোচ্চার হওয়া প্রয়োজন। নির্বাচনের আগে সোচ্চার হওয়ার প্রধান সময়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ