Skip to main content

ভারতকে দিবা-রাত্রির টেস্ট খেলার আমন্ত্রণ অস্ট্রেলিয়ার

স্পোর্টস ডেস্ক : অ্যাডিলেডে টেস্ট ম্যাচ হলে সেটা অবশ্যই দিনে-রাতের গোলাপি বলের ম্যাচ হবে। ২০১৫ থেকে সেটাই হয়ে যাচ্ছে। ধনীদের ক্রিকেটে গোলাপি বলের অভিষেক হওয়ার পর থেকেই অ্যাডিলেডে যে দেশই খেলতে এসেছে, তারা দিন-রাতে টেস্ট খেলা ছাড়া যায়নি। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া চেয়েছিল, ভারতের বিরুদ্ধেও দিন রাতের টেস্ট খেলতে। তবে রবি শাস্ত্রী ও বিরাট কোহলির কারণেই ভারতীয় বোর্ড তাতে সায় দেয়নি। তবে এরপর আবার যখন ভারত অস্ট্রেলিয়ায় আসবে, তখন যেন তারা গোলাপি বলের টেস্ট খেলতে আগ্রহী হয় সেই অনুরোধই ভারতীয় বোর্ডকে জানিয়ে রাখল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। যদিও টেস্ট থেকে মুখ ফিরিয়েছে একটা বিরাট সংখ্যক ক্রিকেট অনুরাগী। ভারতের সাথে সাথে ভারতের বাহিরেও ক্রিকেট অনুরাগীদের টেস্ট নিয়ে অনীহা রয়েছে। অ্যাসেজ বাদ দিলে লাল বলের ক্রিকেট নিয়ে বিশেষ একটা মাতামাতিও এখন আর কোথাও নেই। এমন অবস্থায় টেস্টকে বাঁচিয়ে রাখতে নতুন উদ্যোগ নিয়েছে অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট বোর্ড। আর সে লক্ষ্যেই চালু করা হয়েছে দিন-রাতের টেস্ট। যদিও ভারতে ঘরোয়া ক্রিকেট শুধু একবারই গোলাপি বলের টেস্ট খেলা হয়। আর সেটাও সিএবি-র সৌজন্যে। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড এখনও পর্যন্ত গোলাপি বলের টেস্টকে অনুমোদন দেয়নি। তবে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া চাইছে আগামীতে যেন এই মনোভাব থেকে সরে এসে নতুন আঙ্গিকের ক্রিকেট খেলতে উৎসাহী হয় ভারতও। মূলত ক্রিকেট মাঠে দর্শক টানতেই গোলাপি বলের টেস্ট আয়োজনের কথা ভেবেছিল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। শেষ তিন বছরে যে তিনটি আন্তর্জাতিক টেস্ট অ্যাডিলেডে হয়েছে তাতে গড়ে ৫০ হাজারের কাছাকাছি মানুষ ম্যাচ দেখতে এসেছে। তবে ভারতের বিরুদ্ধে টেস্টে সেই সংখ্যক দর্শক ম্যাচ দেখতে আসেনি। অন্তত ১৫ হাজার সমর্থক কম এসেছে অ্যাডিলেডে। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া চায়, আগামীতে যেন দর্শকদের উৎসাহের কথাও প্রাধান্য দেয় টিম ইন্ডিয়া।