প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘বিএনপির মনোনয়ন বাণিজ্য দেখে আমার লজ্জা লাগে’

আহমেদ জাফর: আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার কার্যালয়, গুলশান অফিস ও নয়াপল্টন কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে মনোনয়ন বাণিজ্যের হাট খুলে বসেছে। বাংলার ইতিহাসে এমন ঘটনা আগে ঘটেনি। দেশের জনগণ তা দেখে এখন মুচকি হাসে, তা দেখে আমার লজ্জা হচ্ছে, বিএনপির লজ্জা হচ্ছে কিনা জানিনা’।

বৃহস্পতিবার (৬ ডিসেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত গণতন্ত্রের মানসপুত্র হোসেন শহীদ সোহরাওয়াদী’র ৫৫ তম মৃত্যুবার্ষিকীতে আলোচনা সভায় একথা বলেন তিনি।

হাছান মাহমুদ বলেন, ‘বিএনপি যেভাবে মনোনয়ন দিচ্ছে রাজনীতির জন্য তা কলঙ্কজনক, লজ্জাজনক! তাদের লজ্জা হচ্ছে কিনা জানিনা ,তা দেখে আমার লজ্জা হচ্ছে’।

তিনি বলেন, ৩০০ আসনের বিপরীতে ৫৫৫ জনকে মনোনয়ন দিয়েছে। বিএনপি প্রতি আসনে প্রায় ২ জন করে মনোনয়ন দিয়েছে। এতেই বোঝা যায় মনোনয়ন বাণিজ্য হয়েছে।যা ইতিহাসে কখনো ঘটেনি। এখন তাদের দেখার বিষয় কোন নেতা কত টাকা দিতে পারে, যে বেশি টাকা দিতে পারবে তাকে মনোনয়ন দেবে বিএনপি। ভারতসহ এশিয়ার কোনো দেশে এমন দেখি নাই’।

এসময় দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘যে কোন নিবার্চনকে সিরিয়াসভাবে নিতে হবে। নিবার্চন হল একটি পরীক্ষা, একটি প্রতিপক্ষ থাকে তাদের কে হারিয়ে জয়ী হতে হয়। তাই আমি বলবো নিবার্চন পর্যন্ত মাঠে থাকতে হবে নেতাকর্মীদের।’

গণতন্ত্রের মানসপুত্র হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীকে স্মরণ করে তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠায় তিনি জড়িত ছিলেন এজন্য আওয়ামী লীগ গর্বিত। তিনি রাজনীতি করে গেছেন সাধারণ মানুষের জন্য সমাজের জন্য। কিন্তু বর্তমানে যারা রাজনীতি করে তাদের অধিকাংশ দেশের জন্য, সমাজের জন্য, জনগণের জন্য, জাতির জন্য রাজনীতি করে না। রাজনীতিবীদরা রাজনীতি ভুলে গেছেন। আমরাও রাজনীতি ভুলে গেছি’।

বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের উপদেষ্টা লায়ন চিত্তরঞ্জন দাসেয় সভাপতিত্ব উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামী লীগ নেতা বলরাম পোদ্দারসহ অন্যান্য নেতারা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ