প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আগামী বছরের হজ প্যাকেজে খরচ বাড়ছে ১০ ভাগ

তরিকুল ইসলাম সুমন : সৌদি আরবে পরিবহন ব্যয়, বিমান ভাড়াসহ আনুষাঙ্গিক ব্যয় বৃদ্ধির কারণে আগামী বছরের হজপালনকারীদের বাড়তি টাকা গুণতে হবে। যা গত বছরের হজ প্যাকেজের তুলনায় ১০ ভাগ বেশি খরচ করতে হবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

হজ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি মাসের ১২ ও ১৩ তারিখ সৌদিতে এ সংক্রান্ত চুক্তি করা হবে। বরাবরের মতো আগামী বছরও বাংলাদেশের কোটা অনুয়ায়ী ১ লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন হজযাত্রী হজ পালনে সৌদি যেতে পারবেন।

সূত্র জানায়, গত বছর সরকারিভাবে ঘোষিত প্যাকেজ- ১ এ খচর হয়েছিল ৩ লাখ ৯৭ হাজার৯২৯ টাকা। এর সঙ্গে ১০ ভাগ যোগ করে প্যারকজ মূল্য দাঁড়াবে ৪ লাখ ৩৭ হাজার৭২২ টাকা। অপরদিকে প্যাকেজ- ২ এ খরচ হয়েছিল ৩ লাখ ৩১ হাজার ৩৫৯ টাকা। এর সঙ্গে ১০ ভাগ যোগ কওে প্যাকেজের মূল্য দাঁড়াবে৩ লাখ ৬৪ হাজার ৪৯৫ টাকা। এসব ছাড়াও কোরবানির জন্য প্রত্যেক হজযাত্রীকে অতিরিক্ত ১৩ হাজার টাকা নিতে হবে।

সম্প্রতি হজ প্যাকেজের মূল্য বৃদ্ধি সম্পর্কে ইঙ্গিত দিয়েছেন ধর্ম সচিব আনিছুর রহমান। তিনি জানান, ২০১৯ সালের হজ প্যাকেজে বাংলাদেশি হজযাত্রীদের বাড়তি টাকা গুণতে হবে। সৌদি আরবে পরিবহন, আবাসনসহ আনুষাঙ্গিক খরচ বেড়ে যাওয়ায় বাংলাদেশি হজযাত্রীদের খরচ বাড়ছে। সৌদি আরবে পরিবহন ব্যয় প্রায় তিন গুণ বেড়েছে। আনুষাঙ্গিক ব্যয় বেড়েছে তাই আমাদের বাড়তি টাকা গুণতে হবে। আবাসনে দ্বিতল খাট ব্যবহার হতে পারে।

আগামী বছর হজযাত্রীদের ট্রলিব্যাগ কেনাকাটায় সরকারের বেঁধে দেওয়া শর্ত অনুযায়ী নির্দিষ্ট আয়তন, পরিমাপ ও রঙের ট্রলিব্যাগ নিজ দায়িত্বে সংগ্রহ করতে হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত