Skip to main content

মৌলভীবাজার-৪ আসনে নতুন ভোটাররাই মূল ফ্যাক্টর

সাদিকুর রহমান সামু, কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি: আসন্ন একাদশ জাতীয় নির্বাচনে মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ-শ্রমঙ্গল) সংসদীয় আসনে প্রায় ৪৭ হাজার তরুন-তরুণীর নতুন ভোট মূল ফ্যাক্টর হতে পারে । এবার প্রথমবারের মতো আসন্ন জাতীয় নির্বাচনে তারা ভোট দেবেন নিজেদের পছন্দের প্রার্থীকে। নতুন ভোটাররা এবারের নির্বাচনে বড় ফ্যাক্টর হয়ে দাঁড়াবেন বলেও মনে করছেন ভোট বিশ্লেষকরা। এ আসনে জয়-পরাজয়ে নতুন এই ভোটাররা অন্যতম ভূমিকা রাখবেন বলে মনে করছেন তারা। কারণ, নিজেদের ভোটের পাশাপাশি ওই তরুণ-তরুণীরা অন্যদের ভোটদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলেও জানান তারা। তাই আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোট ও বিএনপির নেতৃত্বাধীন ঐক্যফ্রন্টের প্রধান টার্গেট এখন নতুন তরুন-তরুণীর ভোট। ২০০৮ সালের নির্বাচনে নতুন ভোটার উদ্বুদ্ধ করেই ক্ষমতায় আসে আওয়ামী লীগ। ডিজিটাল বাংলাদেশ কিংবা যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের প্রতিশ্রুতি দাগ কাটে নতুন প্রজন্মের ভোটারদের। এরপর ২০১৪ সালের নির্বাচনে বিএনপি-জামায়াত অংশ না নেয়ায় অধিকাংশ আসনে ভোটগ্রহণ হয়নি। ফলে ২০০৮ পরবর্তী ভোটার হওয়া নাগরিকরা জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোট দেয়ার সুযোগও পাননি। তাই আসন্ন নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগের জন্য অধির আগ্রহে অপেক্ষা করছেন তারা। এই ভোটারদের নিজেদের পক্ষে টানতে নানা ধরনের কৌশল নিচ্ছে মহাজোট ও ঐক্যফ্রন্ট। নতুন ভোটারদের গুরুত্ব দিয়ে নির্বাচনী ইশতেহারও তৈরি করছে দুই জোট। কমলগঞ্জ ও শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাচন অফিসের ভোটার তালিকা অনুযায়ী এ আসনে মোট ভোটার সংখ্যা- ৩ লাখ ৯৮ হাজার ৯৩৫ জন। তাঁদের মধ্যে নারী ভোটার ১ লাখ ৯৯ হাজার ১৩৭ জন এবং পুরুষ ১ লাখ ৯৯ হাজার ৭৯৮ জন। কমলগঞ্জ উপজেলায় মোট ভোটার হলেন ১ লাখ ৭৯ হাজার ৪০০ জন। এর মধ্যে এবং পুরুষ ভোটার ৮৯ হাজার ৫৬৪ জন ও নারী ভোটার ৮৯ হাজার ৮৩৬ জন। এদিকে শ্রীমঙ্গল উপজেলায় মোট ভোটার হলেন ২ লাখ ১৯ হাজার ৫৩৫ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ১০ হাজার ২৩৪ জন ও নারী ভোটার ১ লাখ ৯ হাজার ৩০১ জন। কমলগঞ্জে ও শ্রীমঙ্গল উপজেলায় মোট ভোট কেন্দ্র ১৫২টি। কমলগঞ্জে ভোট কেন্দ্র ৭২টি ও শ্রীমঙ্গলে ভোট কেন্দ্র ৮০টি। জানা যায়, ২০১৪ সালে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এ আসনে মোট ভোটার সংখ্যা ছিলো ৩ লাখ ৫১ হাজার ৯৯৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ছিলো ১ লাখ ৮৬ হাজার ৭৭৬ জন ও নারী ভোটার ছিলো ১ লাখ ৭৬ হাজার ৯৩১ জন। আর এ আসনে গত দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের চেয়ে ভোট বেড়েছে প্রায় ৪৭ হাজার নতুন তরুন-তরুণী ভোট। আলাপকালে কমলগঞ্জ সরকারি গনমহা বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রুমান আহমেদ বলেন, ভোটাধিকার প্রয়োগ নাগরিক অধিকার। নতুন প্রজন্ম জানে সত্য অনুসন্ধান করতে। আমরা যারা নতুন ভোটার তারা দেশের কল্যাণ কামনা করি। আর যারাই দেশের জন্য প্রকৃতভাবে কাজ করতে পারবে, তাদের বাক্সেই পড়বে নতুনদের ভোট। একজন নতুন ভোটার হৃদয় ইসলাম বলেন, সুষ্ঠু নির্বাচন হলে তিনি অবশ্যই ভোট কেন্দ্রে গিয়ে নিজের ভোট দেবেন। মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসন থেকে বর্তমান সাংসদ সদস্যসহ পাঁচজন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। আওয়ামী লীগ মনোনীত মহাজোটের প্রার্থী উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ এমপি, বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য আলহাজ্ব মুজিবুর রহমান চৌধুরী (হাজী মুজিব), তাঁর ছেলে মুঈদ আশিক চৌধুরী চিশতী, গণফোরামের কেন্দ্রীয় কার্যকরী পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য এডভোকেট শান্তিপদ ঘোষ ও ইসলামী আন্দোলনের মাওলানা সালাউদ্দিন আহমেদ দুলাল।

অন্যান্য সংবাদ