প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

স্বতন্ত্র ও বিদ্রোহীরা মনোনীত প্রার্থীদের মাথাব্যথার কারণ দাঁড়াতে পারে

সৌরভ নূর : ৯ ডিসেম্বরের মধ্যে সরে না দাঁড়ালে আওয়ামী লীগ বা বিএনপি জোটের মনোনীত অনেক প্রার্থীকেই দলীয় প্রতিপক্ষের পাশাপাশি নিজ দলের বিরুদ্ধে নির্বাচনী লড়াই করতে হবে। স্বতন্ত্র বা বিদ্রোহী প্রার্থীদের অনেকেই দলের মনোনীতদের জন্য বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে যা নিয়ে দলীয় নেতারাও উদ্বিগ্ন ।

নির্বাচন কমিশনের দেয়া তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশে এবারের সংসদ নির্বাচনে মোট প্রার্থীর সংখ্যা ৩০৫৬ জন। এর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন ৪৯৮ জন, যাদের বেশির ভাগই বিএনপি বা আওয়ামী লীগের মনোনয়ন চেয়ে পাননি। –বিবিসি

বিদ্রোহী প্রার্থীদের বিষয়ে দলের অবস্থান কি জানতে চাইলে, জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের সময় শেষ হওয়ার আগে বলা যাবে না কে বিদ্রোহী। তবে শেষ পর্যন্ত কেউ বিদ্রোহী হলে তাকে বহিষ্কার করা হবে আজীবনের জন্য।’

অন্যদিকে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, ‘এবারের নির্বাচন বিএনপির জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ এবং সেটি অনুধাবন করেই স্বতন্ত্র প্রার্থীরা শেষ পর্যন্ত দলীয় সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে শেষ পর্যন্ত জনগণের সাথে শামিল হয়ে তারা সরে দাঁড়াবেন বলে আশা করছি।

আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে নির্বাচিত অন্তত ২০ জন উপজেলা চেয়ারম্যান পদত্যাগ করে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। দলীয় মনোনয়ন পাওয়া প্রার্থীদের জন্য এসব প্রার্থীকে বড় হুমকি বলে মনে করা হচ্ছে। এ নিয়ে দুশ্চিন্তা ক্রমশ জোরদার হচ্ছে দলগুলোর মধ্যে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ