প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

টেস্টে বাংলাদেশের সফল জুটির শীর্ষে সাকিব-মুশফিক

নিজস্ব প্রতিবেদক : টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের পক্ষে জুটির দিক থেকে সবচেয়ে বেশী রান সংগ্রহ করেছেন মুশফিকুর রহিম এবং সাকিব আল হাসান। ২০০৮ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত এই দুই ব্যাটসম্যানের জুটি থেকে এসেছে মোট ২৪৫৪ রান।

তারা দুজন একসাথে ৫৮ ইনিংসে ব্যাটিং করার সুযোগ পেয়েছেন। যেখানে ৪২.৩১ গড়ে রান করেছেন সাকিব ও মুশফিক। দেশের টেস্ট ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রানের জুটিও তাদের দুইজনের, ৩৫৯ রানের।

দুইজনের শতক ছাড়ানো জুটি ছিল চারটি। আর ১৬টি ইনিংসে অর্ধশতক ছাড়ানো ইনিংস খেলেছিলেন তারা। টেস্টে টাইগারদের হয়ে জুটিতে সবচেয়ে বেশী রান সংগ্রহে দ্বিতীয়তে রয়েছেন তামিম ইকবাল এবং ইমরুল কায়েস।

২০০৮-২০১৮ সাল পর্যন্ত ৫৮ ইনিংসে এই দুইজন মিলে রান সংগ্রহ করেছেন ২৪৩৩। যেখানে ৩১২ রানের জুটিটি ছিল তাদের সর্বোচ্চ। ৪৩.৪৪ গড়ে রান তুলেছেন দুইজনে, অপরাজিত ছিলেন দুই ইনিংসে। ৪টি শতক ছাড়ানো জুটির বিপরীতে ১১টি অর্ধশতক ছাড়ানো জুটি ছিল তামিম-ইমরুলের।

এ তালিকায় তৃতীয়তে জাতীয় দলের সাবেক দুই ক্রিকেটার হাবিবুল বাশার এবং জাভেদ ওমর বেলিম। এই দুই ব্যাটসম্যান ২০০১ থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত ৩২টি টেস্ট ইনিংসে জুটিতে ব্যাটিং করার সুযোগ পেয়েছিলেন। ৪১.২৮ গড়ে রান তুলেছিলেন ১৩২১, যেখানে ১৬৭ রানের জুটি ছিল তাদের সর্বোচ্চ। ৫টি শতক এবং ৫টি অর্ধশতক ছাড়ানো জুটি ছিল তাদের দুইজনের।

দুই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মমিনুল হক এবং তামিম ইকবালের জুটি থেকে টেস্টে চতুর্থ সর্বোচ্চ রান পেয়েছে বাংলাদেশ। ২০১৩ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত ২০ ইনিংসে এক সাথে ব্যাটিং করার সুযোগ হয়েছিল তাদের। ৫০.৫০ গড়ে ১০১০ রান করেছেন তারা, যেখানে চারটি শতক এবং তিনটি অর্ধশতকের জুটি ছিল এই দুই ব্যাটসম্যানের।

এছাড়াও তামিম এবং জুনায়েদ সিদ্দিকী জুটিটি রয়েছে তালিকার পঞ্চমে। এই দুই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান ২০০৮-২০১২ সাল পর্যন্ত সর্বমোট ১০০৮ রান করেছিলেন। খেলেছেন ২৭টি ইনিংস, যেখানে তাদের গড় রান ছিল ৩৭.৩৩। তিনটি শতক এবং দুটি অর্ধশতক ছাড়ানো ইনিংস ছিল তাদের।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ