প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ইভিএমকে স্বাগত জানিয়ে প্রশিক্ষণের দাবি

রওশন তানিয়া : এবার যে ৬ টি আসনে ইভিএমে ভোট হবে সেগুলোর অন্যতম সাতক্ষীরা-২। এই আসনে ইভিএম এ ভোট গ্রহণের ব্যাপারে ভিন্ন ভিন্ন মতামত জানিয়েছে রাজনৈতিক দলগুলো। আওয়ামী লীগের নেতারা ইভিএম ব্যবহারকে স্বাগত জানালেও কারচুপির অভিযোগ করেছেন বিএনপি নেতারা। তবে সাধারণ ভোটাররা এ ব্যবহারকে স্বাগত জানিয়ে প্রশিক্ষণের ওপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন। সূত্র: ডিবিসি নিউজ

সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি আবুল কালাম আজাদ বলেছেন, ইভিএম ব্যবহার করে আগের মতো উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিবে সাতক্ষীরাবাসী।

তবে বিএনপি নেতাদের অভিযোগ, ইভিএম এ ডিজিটাল কারচুপি করা হবে।

সাতক্ষীরা জেলা বিএনপি’র সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাভোকেট সৈয়দ ইফতেখার আলী বলেন, বোধহীন, বিবেকহীন অশিক্ষিত মানুষের মাঝে ডিজিটাল পদ্ধতি চালু করার কী আছে আমরা জানি না।

স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা জানান ইভিএম পদ্ধতিতে ভোটের কোনো কারচুপি হবে না।

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার আওয়ামী লীগের সভাপতি বলেন, এই পদ্ধতিতে ভোট দেয়া যেমন দ্রুত, তেমনি এর ফলাফল দ্রুত হবে। আজকে এটার বিরোধিতা করলেও একদিন এই পদ্ধতিকে স্বাগত জানাবে।

সাতক্ষীরায় ইভিএম এ ভোট নেয়ার জন্য উপযুক্ত প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে বলে জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক ও জেলা রিটার্নিং

কর্মকর্তা এস এম মোস্তফা কামাল। তিনি বলেন আগামী দিন গুলোতে বাংলাদেশে আধুনিক প্রযুক্তির মাধ্যমে একটি সুষ্ঠ সুন্দর নির্বাচন

উপহার দেয়ার যে ধারণা পোষণ করেছে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন বা যেকোনো নির্বাচনে এ প্রযুক্তি ব্যবহার করতে সক্ষম হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ