প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কুলাউড়ায় সুলতানের পক্ষে মাঠে নেমেছেন নবাব

স্বপন কুমার দেব, মৌলভীবাজার : আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মৌলভীবাজার-২ (কুলাউড়া) আসনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতা সুলতান মোহাম্মদ মনসুরের পক্ষে মাঠে নেমেছেন জাতীয় পার্টির তিনবারের সাবেক এমপি নওয়াব আলী আব্বাছ খাঁন। পুরানো ঋণ শোধ করতেই নাকি তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন এ জার্তীয় পার্টির নেতা।

২০০৮ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বঞ্চিত হলেও জাতীয় পার্টির প্রার্থী নওয়াব আলী আব্বাছ খাঁনের পক্ষে প্রচারণায় অংশ নেন সাবেক এমপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর। দুই নেতার সম্মিলিত আহ্বানে ভোটাররা ভোট দিয়ে আলী আব্বাছ খাঁনকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করেন। তখন স্লোগান ছিলো এক ভোটে দুই এমপি।

তবে ২০১৪ সালের নির্বাচনে অংশ নেননি আলী সুলতান মনসুর, এম এম শাহীন ও নওয়াব আল আব্বাছ খাঁন। ফলে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মোঃ আব্দুল মতিন এমপি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে সহজেই নির্বাচিত হন।

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সাবেক আওয়ামী লীগ নেতা সুলতান মনসুর জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের হয়ে ধানের শীষ প্রতীকে লড়ছেন- এটা নিশ্চিত। তবে নওয়াব আলী আব্বাছ খাঁন এবার আর জাতীয় পার্টিও মনোনয়ন না পাওয়ায় নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন না। তাই তিনি মনোনয়ন ফরমও কেনেননি। সেক্ষেত্রে ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত প্রার্থী সুলতান মোহাম্মদ মনসুরের পক্ষে মাঠে নেমেছেন এই জাপা নেতা।

আলী আব্বাছ খাঁন বলেন, সুলতান ভাইয়ের সাথে আমার ব্যক্তিগত গভীর সম্পর্ক রয়েছে। ১৯৯১ সালের নির্বাচনে তিনি আমার সাথে পরাজিত হয়েছেন। ২০০৮ সালের নির্বাচনে নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমি এমপি নির্বাচিত হই। ওই নির্বাচনে সুলতান ভাই নিজের নির্বাচন মনে করে আমার পক্ষে আন্তরিকভাবে কাজ করেছিলেন।

আমার যদি কোনো সুযোগ তৈরি হয় তাহলে এবারের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী সুলতান মনসুরের ধানের শীষের পক্ষে কাজ করে আমি আমার অতীত ঋণ শোধ করবো।