Skip to main content

টেকনাফে ক্যাম্পে রোহিঙ্গাদের আন্দোলন প্রত্যাহার

ফরহাদ আমিন, টেকনাফ: বিভিন্ন তথ্যসহ স্মার্টকার্ড তৈরি করার বিষয়ে অনীহা প্রকাশের কেন্দ্র করে দুই দিন ধরে টেকনাফের হোয়াইক্যং চাকমারকুল ক্যাম্পে চলা প্রতীকী আন্দোলন প্রত্যাহার করেছে রোহিঙ্গারা। তারা জাতিসংঘ শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর কর্তৃক প্রণীত স্মার্টকার্ড নিতে আপত্তি জানিয়ে কার্ডে জাতীয়তার পরিচিতিতে ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি যুক্ত করার দাবি করে। একই সঙ্গে আরো চার দফা দাবিতে চাকমারকুল ক্যাম্পে আশ্রিত রোহিঙ্গারা গত সোমবার থেকে প্রতীকী আন্দোলন শুরু করে। এ সময় তারা ক্যাম্পের দোকানপাট বন্ধ রেখে নিজ নিজ ঘরে অবস্থান নেয়।দুই দিন ধরে চলা রোহিঙ্গাদের প্রতীকী আন্দোলনের শান্তিপূর্ণ সমাধানের লক্ষ্যে গতকাল মঙ্গলবার সকালে রোহিঙ্গা নেতাদের সঙ্গে আলোচনায় বসে ক্যাম্পের সিআইসি মাহবুবুর রহমান ভূঁইয়া। এ সময় রোহিঙ্গারা তার কাছে ইউএনএইচসিআর কর্তৃক নতুন করে প্রস্তুত করা স্মার্ট পরিচিতিপত্রে জাতীয়তায় রোহিঙ্গা উল্লেখ না করার বিষয়টি তুলে ধরেন। ক্যাম্প সিআইসি রোহিঙ্গাদের দাবির বিষয়ে শিগগিরই সুষ্ঠু সমাধানের আশ্বাস দিলে রোহিঙ্গারা আন্দোলন প্রত্যাহারের প্রতিশ্রুতি দেন। তবে এর আগে রোহিঙ্গারা আজ বুধবার পর্যন্ত আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছিল। টেকনাফ চাকমারকুল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের সিআইসি মাহবুবুর রহমান ভূঁইয়া জানান, রোহিঙ্গারা স্মার্ট পরিচয়পত্রে ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি না থাকায় আপত্তি তুলেছিল। এ ব্যাপারে মঙ্গলবার তাদের সঙ্গে আলাপ আলোচনা করে শান্তিপূর্ণ সমাধান হয়েছে।