প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নীলফামারীতে খুদে কবিদের সম্মাননা দিচ্ছে ভিশন-২০২১

নূর আলম সিদ্দিকী, নীলফামারী : নীলফামারীতে খুদে কবিদের সম্মাননা দিচ্ছে ভিশন-২০২১। নীলফামারীতে তৃতীয় বারের জন্য ৪৫৭ জন খুদে কবিকে পুরস্কৃত করছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ভিশন-২০২১। মঙ্গলবার শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে প্রধান অতিথি সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর নির্বাচিত খুদে কবিদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

এ সময় সম্মাানিত অতিথি বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের সভাপতি, শিক্ষাবিদ অধ্যাপক আবদুল্লাহ আবু সায়ীদ, কথাসাহিত্যিক ইমদাদুল হক মিলন, কথাসাহিত্যিক আখতার হুসেন, সুজন বড়ুয়া, অভিনয়শিল্পী নুসরাত ইমরোজ তিশা, জাদুশিল্পী শাহীন শাহ ও জাতীয় দলের সাবেক ক্রিকেটার আশরাফুল ইসলাম।ভিশন-২০২১ সূত্র জানায়, নীলফামারী সদর উপজেলার ৪২১টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ২২ হাজার ৪৩৪ জন শিক্ষার্থীর জমা হওয়া কবিতা ও ছড়া থেকে প্রাথমিকভাবে ৫ হাজার জনকে নির্বাচিত করা হয়।এদের মধ্য থেকে দেশের বরেণ্য কবি সাহিত্যিকদের যাচাই- বাছাইয়ে চূড়ান্তভাবে নির্বাচন করা হয় ৪৫৭ জনকে। তাদের কবিতা ও ছড়া নিয়ে প্রকাশ হলো গ্রন্থ। যেটির মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে।অনুষ্ঠান ঘিরে ইতোমধ্যে সংগঠনটি সাজিয়েছে অনুষ্ঠানস্থল।

সেখানে শোভা পাবে বাংলাদেশের ইতিহাস, ঐতিহ্য, ভাষা আন্দোলন, স্বাধীনতা সংগ্রামসহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ প্রেক্ষাপট।এছাড়াও মঞ্চে যাদু প্রদর্শনি,কিবতা আবৃত্তি,অতিথিদের গল্প শোনা হয়েছে। অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থী, শিক্ষক, অভিভাবক, জনপ্রতিনিধি, গণমাধ্যমকর্মী, ব্যবসায়ী প্রতিনিধিসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার ২০ হাজারের অধিক মানুষের বসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। মঞ্চে স্থানীয় শিল্পিদের গানে মুন্ধ শ্রোতা ও অতিথিরা।ভিশন-২০২১-এর প্রধান সমন্বয়কারী ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ওয়াদুদ রহমান জানান, ২০১১ সালের শেষের দিকে সংগঠনটি শিক্ষার্থীদের নিয়ে কাজ শুরু করে।নীলফামারী সদর উপজেলায় ১৪৪টি ওয়ার্ডে এর কমিটি রয়েছে আর স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে কাজ করছেন প্রায় ৬০০ যুবক।

তিনি বলেন, সৃজনশীল প্রতিভা অন্বেষণ ও মেধা বিকাশের লক্ষ্যে ২০১৬ সাল থেকে শিক্ষার্থীদের (প্রাথমিক ও মাধ্যমিক) মধ্য থেকে বাছাই করে খুদে কবি সাহিত্যিকদের সম্মাননা প্রদানের ব্যবস্থা শুরু হয় নীলফামারী-২ আসনের সংসদ সদস্য ও মাননীয় সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এমপির পৃষ্ঠপোষকতায়।ভিশন সূত্র জানায়, ২০১৬ সালে ১৬ হাজার শিক্ষার্থীর মধ্যে ১৯৮ জন এবং ২০১৭ সালে ১৮ হাজার ৩৩১ জনের মধ্যে ৫৪০ জন খুদে কবিকে নির্বাচিত করে পুরস্কৃত করা হয় অনুষ্ঠানের মাধ্যমে। এবারেও নির্বাচিত কবিদের ৫০০ টাকার প্রাইজবন্ড, সনদপত্র এবং ক্রেস্ট প্রদান করা হয় পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ