প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দেশপ্রেম ও সংগ্রামী জীবনের গল্প ‘পতাকা’

ডেস্ক রিপোর্ট : শরাফত নদীভাঙা এক গ্রামের হতভাগ্য যুবক। কাজের সন্ধানে সে ঢাকায় এসে মৌসুমি পণ্যের হকারে পরিণত হয়েছে। পতাকা বিক্রি করতে গিয়ে নানা ঘটনার মধ্য দিয়ে সে লক্ষ্য করেছে, বিপন্ন-পরাস্ত দেশপ্রেমকে। শরাফতের মাঝে হতাশার ব্যঞ্জনা আছে, যাতনা আছে আবার সে ক্ষুণ্ণ হয় চৈতন্যহীন সমাজ ও আধুনিকতার ট্র্যাজিক উল্লাস দেখে। অন্যদিকে বাসাবাড়িতে ঝিয়ের কাজ করা মালেকা অনুভব করে শেকড়ের টান। আধুনিক জীবনধারায় অনেকে শেকড়কে উপেক্ষা করে; কিন্তু মালেকা কোনোভাবেই তাদের দলে ভিড়তে পারে না। শেকড় আর মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস তার মধ্যে দানা বেঁধে থাকে। দুই তরুণ-তরুণীর দেশপ্রেম ও সংগ্রামী জীবনের এমনই এক গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে নাটক ‘পতাকা’। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার জাগরণ এবং নাগরিক ইট-পাথরের ব্যস্ত শহরে দেশমাতৃকার প্রতি ভালোবাসার আকুতি কতটুকু- এমন প্রশ্নকে উপজীব্য করে নাটকটি রচনা করেছেন রুদ্র মাহফুজ।

পরিচালনা করেছেন কাজী সাইফ আহমেদ। সম্প্রতি রাজধানীর উত্তরা, পূর্বাচল ও শাহবাগে নাটকের দৃশ্যধারণ করা হয়েছে। এর প্রধান দুই চরিত্র শরাফত ও মালেকার ভূমিকায় অভিনয় করেছেন তৌসিফ মাহবুব ও সাফা কবির। এ নাটক প্রসঙ্গে তৌসিফ মাহবুব বলেন, ‘পতাকা’ নাটকের গল্পে একদিকে যেমন হতভাগ্য মানুষের সংগ্রামের চিত্র আছে, তেমনি আছে দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হওয়ার মন্ত্র। যেজন্য নাটকটি অনেকের মনে দাগ কাটবে বলেই আমার বিশ্বাস। সাফা কবির বলেন, গল্প ও চরিত্র ‘পতাকা’ নাটকটিকে অন্যান্য নাটক থেকে আলাদা করে দিয়েছে। দর্শককে এর গল্প ভাবাবে বলেই আমার বিশ্বাস। নির্মাতা জানান, আগামী ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে ‘পতাকা’ নাটকটি নাগরিক টিভিতে প্রচার হবে।
সূত্র : সমকাল