প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ইথিওপিয়ার অনাড়ম্বর মসজিদে নবীযুগের প্রতিচ্ছবি

ডেস্ক রিপোর্ট : পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্তে রয়েছে বিপুল অর্থ ব্যয়ে নির্মিত জমকালো, জাঁকজমকপূর্ণ অসংখ্য মসজিদ। কিন্তু ইথিওপিয়ার দানাকিল মরুভূমিতে অবস্থিত আসিতা অঞ্চলের মত সরলতম মসজিদ বর্তমানে খুব কমই আছে। এ যেন সেই নবীযুগের মসজিদের প্রতিচ্ছবি।

কোন প্রকার মার্বেল ঢালাই, বিশালাকার ঝাড়বাতি এবং কোন প্রকার ক্যালিওগ্রাফি বা নকশা ছাড়াই এই মসজিদটি সরল ও সাধারণ কাঠ ও খড়ি দিয়ে তৈরি করা হয়েছে।

তথাপি এই মসজিদটির সৌন্দর্য কোন অংশেই কমেনি। বরং এর মধ্যে দারিদ্র্য-পীড়িত মানুষের কেবল মাত্র আল্লাহর জন্য একনিষ্ঠতা আর প্রাণ-প্রাচুর্যের যে সৌন্দর্য বিদ্যমান, ইট-পাথরের কর্কশ শুকনো নগরগুলোতে তা আর কোথায় আছে?

মসজিদের মিনারটিও কাঠ, গাছের ডাল এবং খড়ি দিয়ে তৈরি। এর ভিত্তিতে সাপোর্ট দেওয়ার জন্য এর নিচে বড় বড় পাথর চাপা দিয়ে রাখা হয়েছে।

মসজিদটি খুব বড় না এবং এখানকার মুসল্লীরাও স্থায়ী না। মরুভূমিতে পথচারী যাযাবররা কেউ এর পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় এতে নামায আদায় করে থাকে। সর্বোপরি, এই মসজিদে নামাযের অভিজ্ঞতা পুরোপুরিই ভিন্নতর এক অভিজ্ঞতা।

আমরা আমাদের শহর ও নগরগুলোতে মসজিদের সৌন্দর্য বর্ধনে যে অর্থ ব্যয় করছি, নিঃসন্দেহে অন্তরের নিয়ত অনুযায়ী এর বিশাল প্রতিদান রয়েছে। তথাপি নিজেদের নামায ও আল্লাহর সাথে সম্পর্কোন্নয়নে আরও চেষ্টা-প্রচেষ্টা ব্যয় করা উচিত। দয়াময় আল্লাহ সেই তাওফিক দান করুন। আমীন।
সূত্র : পরিবর্তন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ