প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

স্বাধীনতা কাপ ফুটবল ১ ডিসেম্বর শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশ প্রিমিয়ার ফুটবল লিগ শুরু হওয়ার কথা ছিল ৩০ নভেম্বর। বাফুফে হঠাৎই ঘরোয়া সূচিতে পরিবর্তন এনে ওই দিন লিগের পরিবর্তে স্বাধীনতা কাপ শুরুর সিদ্ধান্ত নেয়; কিন্তু শুরুর দিনটা ঠিক রাখতে পারলো না দেশের ফুটবলের অভিভাবক সংস্থাটি। একদিন পিছিয়ে ফেডারেশন কাপ শুরুর নতুন তারিখ নির্ধারণ হয়েছে ১ ডিসেম্বর। বিজয়ের মাসের প্রথম দিন মাঠে গড়াবে স্বাধীনতা কাপ।

প্রিমিয়ার লিগের ১৩ ক্লাব খেলছে মৌসুমের দ্বিতীয় এ টুর্নামেন্টে। গত আসরে বিদেশিরা খেলতে পারেননি। এবার বিদেশি রাখা হয়েছে বাইলজে। খেলা হবে ৪ গ্রুপে। তারপর কোয়ার্টার ফাইনাল, সেমিফাইনাল ও ফাইনাল। ফেডারেশন কাপের ঠিক কার্বনকপি স্বাধীনতা কাপ। প্রাইজমানিও সমান- চ্যাম্পিয়ন দল ৫ ও রানার্সআপ দল পাবে ৩ লাখ টাকা করে। রোববার টুর্নামেন্টের গ্রুপিং চূড়ান্ত করেছে বাফুফে। ১৩ দল চার গ্রুপে ভাগ হয়ে খেলবে। সর্বশেষ বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের পয়েন্ট টেবিল অনুযায়ী দলগুলোকে চার পাত্রে রেখে লটারির মাধ্যমে গ্রুপিং করা হয়েছে।

যে কোনো টুর্নামেন্টের গ্রুপিং মানেই বড় প্রশ্ন শক্ত গ্রুপ কোনটি। খেলাধুলায় ব্যবহার হয় ‘গ্রুপ অব ডেথ’ বাক্যটি। সেটা বললে ‘ডি’ গ্রুপ। ফেডারেশন কাপ ফুটবলের সেমিফাইনাল খেলা চার দলের তিনটি বসুন্ধরা কিংস, শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব ও শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র পড়েছে এক গ্রুপে। এ তিনটি ক্লাবেরই পৃষ্ঠপোষক বসুন্ধরা গ্রুপ। গ্রুপ পর্ব থেকেই বাদ পড়তে হবে এক দলকে।

সদ্য ফেডারেশন কাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়া আবাহনী পড়েছে ‘সি’ গ্রুপে। তাদের দুই প্রতিপক্ষ ব্রাদার্স ইউনিয়ন ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্র। স্বাধীনতা কাপ ফুটবলের সর্বাধিক ৩ বারের চ্যাম্পিয়ন মোহামেডান খেলবে ‘বি’ গ্রুপে। ফেডারেশন কাপের মতো স্বাধীনতা কাপেও সাদাকালোরা পড়েছে চার দলের গ্রুপে। অন্য তিন দল গতবারের রানার্সআপ চট্টগ্রাম আবাহনী, পুরোনো ঢাকার দল রহমতগঞ্জ ও নবাগত নোফেল স্পোর্টিং ক্লাব। গতবারের চ্যাম্পিয়ন আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ ‘এ’ গ্রুপে খেলবে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব ও বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশনের (বিজেএমসি) সঙ্গে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ