প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিএনপির অভিযোগের নিন্দা জানালেন ইসি সচিব

সাইদ রিপন : ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগকে আবারও ক্ষমতায় বসাতে নির্বাচন কমিশন ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে কর্মকর্তাদের নিয়ে নির্বাচন কমিশন গোপন বৈঠক করেছে বলেও অভিযোগ তার। কথিত ওই বৈঠকে নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ উপস্থিত ছিলেন বলে সংবাদ সম্মেলনে রিজভী অভিযোগ করেন। সংবাদিকরা এ সংক্রান্ত প্রশ্ন করলে ইসি সচিব বলেন, আমি এ বক্তব্যের তিব্র নিন্দা জানাই। এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা। আমি বলবো এ ধরনে মিথ্যা যেন প্রপাগণ্ডা না ছড়ানো হয়।

শনিবার নয়াপল্টনে দলেরকেন্দ্রীয় কার্যালয়ে একসংবাদ সম্মেলনে রিজভী এই অভিযোগ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে রিজভী বলেন, ‘গত ২০ নভেম্বর মঙ্গলবার রাতে ঢাকা অফিসার্স ক্লাবের চার তলার পেছনের কনফারেন্স রুমে এক গোপন মিটিং অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ ।

আপনার বিরুদ্ধে বিএনপি সংবাদ সম্মেলন করে অভিযোগ করেছে সংবাদিকরা এ সংক্রান্ত প্রশ্ন করলে ইসি সচিব বলেন, এটা সম্পুর্ণ মিথ্যা । এবং আমি আপনারা জানেন আপনারা এখানে থাকেন। আমি এখান থেকে (ইসি ভবন ) আটটা নয়টা পর্যন্ত  থাকি। সংবাদ সম্মেলনে যে কথা বলা হয়েছে এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা একটা অভিযোগ আনা হয়েছে। এবং নির্বাচন কমিশন সচিব প্রজাতন্ত্রের কর্মকর্তা এবং একটি স্বাধীন বর্ডিতে উনি কাজ করেন। এবং নির্বাচন কমিশনের সকল ধরনের আদেশ নির্দেশ পালন করে উনি এটা কাজ করে থাকে। নির্বাচন কমিশনের কাজের বাইরে কিন্তু নির্বাচন কমিশনের কোন সত্ত্বা নেই। সেই জন্য বলছি বিএনপির বক্তব্যে সম্পূর্ণ মিথ্যা আমি তিব্র নিন্দা জানাই। এ ধরনে মিথ্যা প্রবাগাণ্ডা যাতে আর না করা হয়। এ ব্যপারে সতর্ক থাকাতে বলবো।

চট্টগ্রামের এক গোপন বৈঠকে ইসি সচিব ছিলেন বলে বিএনপি যে অভিযোগ করেছে সেটাকেও মিথ্যা বলেছেন ইসি সচিব।

ইসি সচিবের বিরুদ্ধে যে এ মিথ্যা অভিযোগ দিচ্ছে বিএনপি এর বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশন কোন পদক্ষেপ নিবে কি না এমন প্রশ্নের জবাবে ইসি সচিব বলেন, ‘গামীকাল কমিশনে বিষয়টি তোলা হবে। মাননিয় নির্বাচন কমিশন যেটা সিদ্ধান্ত দেয় সে অনুয়ায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ