প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দলীয় সরকারের অধীনে স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই : শাহ আলম

রফিক আহমেদ : বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি- সিপিবি’র সাধারণ সম্পাদক ও বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমন্বয়ক শাহ আলম বলেছেন, দলীয় সরকারের অধীনে স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। নির্বাচন কমিশন মেরুদণ্ড উঁচু করে দাঁড়াতে না পারলে অচিরেই বিতর্কে জড়িয়ে পড়বে। শনিবার তার সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করলে তিনি এ কথা বলেন।

বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমন্বয়ক বলেন, ৯০’ এর পর এবার প্রথম একাদশ জাতীয় নির্বাচন দলীয় সরকারের অধীনে হচ্ছে। যার ফলে নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক, গ্রহণযোগ্য ও নিরপেক্ষ হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর প্রশাসনিক ক্ষমতাসহ সবকিছু নির্বাচন কমিশনের আওতায় গেলেও নির্বাচন কমিশন স্বাধীন ও মেরুদণ্ড উঁচু করে দাঁড়াতে পারছে না। তাদের কার্যকলাপ ও আচার আচরণ প্রমাণ করে দেশের মানুষ নিজের ভোট নিজে দিতে পারবে কিনা তা নিয়ে উদ্বেগ উৎকন্ঠা ও সংশয়ের মধ্যে আছে।

তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন ও বর্তমান সরকারের কর্মকাণ্ড মনে হচ্ছে দেশে দ্বৈত শাসন চলছে। কারণ নির্বাচন কমিশন মেরুদন্ড উঁচু করে দাঁড়াতে পারছে না। এতে চলমান রাজনীতিতে নতুন করে অস্থিরতা দেখা দেবে। আমরা ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির মতো আর একতরফা নির্বাচন চাই না। বর্তমান নির্বাচন কমিশন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনসহ স্থানীয় সরকার নির্বাচনসমূহ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে ব্যর্থ হওয়ায় জনগণের আস্থা হারিয়েছে। তাই বর্তমান নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, একাদশ জাতীয় নির্বাচনের আগে বাম গণতান্ত্রিক জোটের ৭ দফা সরকারকে মেনে নিয়ে তা কার্যকর করতে হবে। এই দাবিসমূহ হচ্ছে- নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগেই জাতীয় সংসদ জাতীয় সংসদ ভেঙে দেওয়া, বর্তমান সরকারকে পদত্যাগ করে নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ তদারকি সরকার গঠন করা, জনগণের আস্থাহীন বর্তমান নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন, সংখ্যানুপাতিক প্রতিনিধিত্ব ব্যবস্থা প্রবর্তনসহ নির্বাচন ব্যবস্থার আমূল সংস্কার ও রাজনৈতিক সঙ্কট নিরসন করতে হবে।

সম্পাদনা-মাহবুব আলম

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ