প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিরোধীদল বিহীন নির্বাচনে বাহরাইন

আনন্দ মোস্তফা: বিরোধীদলকে নির্বাচনে নিষিদ্ধ করে বাহরাইনে শনিবার ভোট অনুষ্ঠিত হচ্ছে। যদিও শিয়া মতাবলম্বী বিরোধদলের ওপর দমন পীড়ন চালিয়ে পশ্চিমা মিত্র দেশটিতে নির্বাচনের মাধ্যমে শান্তি ফিরবে কিনা, সে বিষয়ে আশংকা রয়েছে। রয়টার্স

বিরোধী কর্মীরা নির্বাচনকে ‘প্রহসন’ আখ্যায়িত করে বর্জনের ডাক দিয়েছে। নির্বাচনের বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়েও সন্দেহ পোষণ করেন তারা। যদিও বাহরাইন সরকার নির্বাচনকে ‘গণতান্ত্রিক’ বলে দাবি করেছে।

২০১১ সালে শিয়া বিরোধীদের একটি অভ্যুত্থান প্রচেষ্টা ব্যর্থ হলে সেসময় থেকেই সুন্নি আল-খলিফা পরিবার বাহরাইনের রাষ্ট্রক্ষমতায় রয়েছে। সেসময় অভ্যুত্থান দমন করার জন্য সৌদি আরবও বাহরাইনে সেনা পাঠায়।

বাহরাইনে শিয়ারা ক্ষমতায় বসলে তা নিজ দেশের শিয়া সংখ্যালঘুদেরকেও অতি উৎসাহী করবে বলে মনে করে সৌদি আরব।

সরকারি হিসেবে অনুযায়ী, নির্বাচনে ৫০৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। এবারের নির্বাচনে সর্বোচ্চ সংখ্যক নারী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। নির্বাচন কমিশন ২০১৪ সালের নির্বাচনের তুলনায় বেশি ভোটারের উপস্থিতি আশা করছে। বিরোধীদলবিহীন গত নির্বাচনে ৫৪ শতাংশ ভোটার উপস্থিতি ছিল।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ