প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

লালমনিরহাটে প্রতিবন্ধির জমিতে ঘর তুলে দখলের চেষ্টার অভিযোগ

লালমনিরহাট প্রতিনিধি: আমন ধান ঘরে তুলে রবি শষ্য চাষাবাদের জন্য তৈরীকৃত এক প্রতিবন্ধির জমিতে হঠাৎ দুর্বৃত্তরা দলবল নিয়ে ঘর তুলে দখলের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে।

শুক্রবার(২৩ নভেম্বর) দুপুরে লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার মহিষখোচা ইউনিয়নের বারঘড়িয়া গ্রামের প্রতিবন্ধি শামছুল হকের জমিতে এ ঘর তুলে দুর্বৃত্তরা।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ওই বারঘড়িয়া গ্রামের শামছুল হকের সাথে বসত বাড়ির জমি নিয়ে বিরোধ চলছে প্রতিবেশী মৃত মোহাম্মদ আলীর ছেলে জাফর আলীর। উভয় উভয়ের বসত ভিটার জমি নিয়ে দীর্ঘ দিনের এ বিরোধকে কেন্দ্র করে একাধিকবার স্থানীয় ভাবে স্যালিশ বৈঠক হলেও সমাধান হয়নি।

বৃহস্পতিবার প্রতিবন্ধি শামছুল হকের অপর একখন্ড(বিরোধহীন জমি) ফসলি জমি(১১শতাংশ) থেকে আমন ধান তুলে নিয়ে রবি শষ্য চাষাবাদের জন্য হালচাষ দিয়ে প্রস্তুত করেন। শুক্রবার জুম্মার নামাজের সময় গ্রামের লোকজন মসজিদে গেলে এ সুযোগে জাফর আলী ভারাটে ২৫/৩০জন সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে ওই জমিতে ঘর তুলেন। নামাজ শেষে বাড়ি ফিরে এসে জমিতে ঘর দেখতে পেয়ে আদিতমারী থানায় গিয়ে লিখিত একটি অভিযোগ দায়ের করেন প্রতিবন্ধি শামছুল হকের স্ত্রী আমিনা বেগম।

নাম প্রকাশের অনিচ্ছুক ওই গ্রামের কয়েকজন বৃদ্ধ জানান, শামছুল হক নিজে প্রতিবন্ধি ও তার ছেলেরাও বাহিরে থাকে। এ সুযোগে প্রভাবশালী জাফার দলবল নিয়ে প্রায় সময় এ নিরহ পরিবারটার উপর হামলা চালায়। লাঠি ও টাকা কোনটাই না থাকায় শামছুল কোন প্রতিকার পাচ্ছেন না বলেও দাবি করেন তারা।

শামছুল হকের স্ত্রী আমিনা বেগম জানান, বিরোধপুর্ন জমিটা জঙ্গলে চাষাবাদ হয় না জন্য জাফর আলী সেটা না নিয়ে আমাদের একমাত্র ফসলি জমিটা জবর দখলের চেষ্টা করছেন।

অভিযুক্ত জাফর আলী ও তার ছেলে মজিবর রহমান জানান, প্রতিবন্ধি চাষাবাদ করলেও এটা তাদের জমি। তাই তারা ঘর তুলেছেন।

আদিতমারী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মাসুদ রানা জানান, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ