Skip to main content

আওয়ামী লীগের মনোনয়নে চলছে শেষ মুহুর্তের যোগ-বিয়োগ

আসাদুজ্জামান সম্রাট : ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের মনোনয়নের ক্ষেত্রে চলছে শেষ মুহুর্তের যোগ-বিয়োগ। শরীকদের জন্য ৬০-৭০ আসন ছেড়ে তৈরি করা দলীয় মনোনয়নে বুধবার যেমন বাদপড়ার আতঙ্ক ছিল তেমনি ছিল যোগ হওয়ারও ঘটনা। শেষ মুহুর্তে মনোনয়নের জন্য প্রার্থীরা দৌড়ঝাপ করছেন প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন গণভবন, দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বাসা এবং অফিসে। মনোনয়ন বোর্ডের সদস্যদের অফিস ও বাড়িতেও ভীড় লেগে আছে। কিশোরগঞ্জ-২ আসনের মনোনয়ন বঞ্চিত হওয়ার খবরে ওই আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট সোহরাব উদ্দিন নানামহল থেকে চেষ্টা-তদবির চালিয়ে যাচ্ছেন। দেশের শীর্ষ এক ব্যক্তিকে দিয়েও চলছে চোর প্রচেষ্টা। ওই আসনের সম্ভাব্য প্রার্থী পুলিশের সাবেক আইজি নূর মোহাম্মদের বিরুদ্ধে মনোনয়ন প্রার্থী ১১জন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার কাছে চিঠি লিখেছেন। যাতে তাকে রাজাকার পূত্র হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। কিন্তু এতেও মন গলেনি দলীয় প্রধানের। উল্টো সবার কাছে জানতে চেয়েছেন, যখন তাকে আইজি, সচিব ও রাষ্ট্রদূত করা হয়েছে তখন তারা এসব বলেননি কেনো? বরিশাল-২ আসন থেকে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য নায়ক সোহেল রানাকে আসন ছেড়ে দেয়া হচ্ছে শুনে ওই আসনের সংসদ সদস্য তালুকদার মো. ইউনূস গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। সেখানে তার মনোনয়ন অক্ষুন্ন থাকবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন তার সহকারী একান্ত সচিব। রাজশাহীর-৫ আসনের আব্দুল ওয়াদুদ দারা মনোনয়ন বঞ্চিত হওয়ার খবরে দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য নবী নেওয়াজের মনোনয়ন বঞ্চিত হওয়ার খবরে বিভিন্ন মহলে ধর্ণা দিচ্ছেন। নরসিংদী-৩ আসনের স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য সিরাজুল ইসলাম মোল্লার নাম খসড়া প্রার্থী তালিকায় থাকলেও ওই আসনটি ইসলামী ঐক্যজোটের আব্দুল লতিফ নেজামীকে ছেড়ে দেয়া হতে পারে। বিকল্পধারার সঙ্গে এখনও চূড়ান্ত হয়নি আসন সমঝোতা। ওয়ার্কার্স পার্টির সংসদ শেখ হাফিজুর রহমান নড়াইল-১ আসন থেকে মনোনয়ন পাচ্ছেন না। ওই আসনে জাতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার মনোনয়ন চূড়ান্ত করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

অন্যান্য সংবাদ